মহেশখালীতে পিতা-পুত্র অপহৃত, চেয়ারম্যানের বাড়িতে গুলি

0

মহেশখালী উপজেলার কালারমারছড়ার ফকিরজুম পাড়া থেকে সেকান্দার (৫৫) নামে এক ব্যক্তি ও তার ছেলে আকতার হোসেনকে অপহরণ করেছে সন্ত্রাসীরা। পরে সেকান্দারকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। এখন পর্যন্ত আকতারকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

সোমবার (১৪ জানুয়ারি) সকাল ৯টায় নিজ বাড়ি থেকে তাদের অপহরণ করা হয়। পরে রাতে কালারমারছাড়া ইউপি চেয়ারম্যান তারেক শরীফের বাসায় সন্ত্রাসীরা গুলি করে বলে জানা যায়।

অপহৃতদের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়, নোনাছড়ির সেলিম বাহিনী ও কালারমারছড়া জিয়া বাহিনীর লোকজন এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত।

স্থানীয়রা জানান, ১৫-২০ জন অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী এসে সেকান্দার ও তার ছেলে আকতারকে তাদের বাড়ির পাশের রাস্তা থেকে অপহরণ করে নোনাছড়ির পূর্বে পাহাড়ি আস্তানায় নিয়ে যায়। সেখানে তাদেরকে দা’ দিয়ে নির্মমভাবে কোপানো হয়। একপর্যায়ে গুরুতর আহত অবস্থায় সেকান্দারকে রেখে চলে যায় সন্ত্রাসীরা। সেখান থেকে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

কালারমারছড়ার ইউপি চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ জয়নিউজকে বলেন, রাতে বাড়িতে লোকজন ঘুমন্ত অবস্থায় ছিলেন। এসময় সন্ত্রাসীরা আমার বাড়িতে গুলি করে। আমার মা ফোনে বিষয়টি আমাকে অবগত করেন। পরে লোকজন ও স্থানীয় পুলিশ ক্যাম্পে খবর দেওয়া হলে তারা আসার আগেই বন্দুকধারিরা এলাকা ত্যাগ করে।

কালারমারছড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই শাহাজাহান জয়নিউজকে বলেন, অপহরণের অভিযোগ পেয়ে আমরা পাহাড়ে অভিযান পরিচালনা করে সেকান্দার নামে এক ব্যক্তিকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করি। কিন্তু কে বা কারা তাদের অপহরণ করেছে তা এখন পর্যন্ত জানা যায়নি। ব্যাপারটা অপহরণ না অন্য কিছু তা তদন্ত করে দেখা হবে। এছাড়া স্থানীয় চেয়ারম্যানের বাড়ি লক্ষ্য করে সন্ত্রাসীরা গুলি করেছে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

জয়নিউজ/শাহাবউদ্দীন/শহীদ
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...