জলবায়ু পরিবর্তনের ঝুঁকি মোকাবেলায় সচেতনতা তৈরির আহ্বান মেয়রের

0

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন জলবায়ু পরিবর্তনজনিত ঝুঁকি মোকাবেলা ও পরিবেশ রক্ষার ক্ষেত্রে সচেতনতা তৈরিতে চসিকের কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলরদের নিজ নিজ অবস্থান থেকে ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) চসিক সম্মেলন কক্ষে ‘জলবায়ু পরিবর্তনে দুঃস্থতা সমীক্ষা’ শীর্ষক কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আহ্বান জানান।

মেয়র বলেন, নাগরিক সুবিধা বৃদ্ধি পাওয়ার কারণে নগরে জনসংখ্যার চাপ বেড়েছে। একদিকে জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে সমুদ্রপৃষ্টের উচ্চতা বৃদ্ধি পাচ্ছে। অন্যদিকে অতি বৃষ্টি-অনাবৃষ্টি, বন্যা-খরা, পাহাড় ধসে জান-মালের ক্ষয়-ক্ষতি বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই এ ব্যাপারে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করা প্রয়োজন।

মেয়র আরো বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনে দুঃস্থতা সমীক্ষা বিষয়ে ওয়ার্ডভিত্তিক নিখুঁত প্রতিবেদন প্রস্তুতে আগামী সাত দিনের মধ্যে সব কাউন্সিলরদের কাছে চিঠি পাঠিয়ে মতামত নেওয়া হবে। এজন্য তিনি সব কাউন্সিলরদের জলবায়ু পরিবর্তনজনিত সম্ভাব্য ঝুঁকি ও আপদগুলো নির্ণয়ের আহ্বান জানান।

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সামসুদ্দোহার সভাপতিত্বে ও এলইউপিসির সিটি ম্যানেজার ড. সোহেল ইকবালের সঞ্চালনায় কর্মশালায় মুক্ত আলোচনায় অংশ নেন কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক, মো. মোবারক আলী, ছালেহ আহমদ চৌধুরী, মো. শফিউল আলম, মনোয়ারা বেগম মনি, বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা কোডেকের প্রধান নির্বাহী কমল সেনগুপ্ত।

কর্মশালায় জলবায়ু পরিবর্তনের দুঃস্থতা সমীক্ষা বিষয়ে প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন এশিয়ান ডিজাস্টার প্রিপেয়ার্ডন্সে সেন্টারের (এডিপিসি) ফিজিক্যাল ভালনারেবল কো-অর্ডিনেটর মো. সাখাওয়াত হোসেন।

উল্লেখ, জলবায়ু পরিবর্তনজনিত পরিবেশের সম্ভাব্য ভারসাম্যহীনতার বিষয় ও আপদ সম্পর্কে ইউএনডিপি তাদের দুজন প্রতিনিধির উপস্থিতিতে নগরের ১০ ওয়ার্ডে সমীক্ষা কার্যক্রম চালাবে।

জয়নিউজ/কাউছার/জুলফিকার

সরাসরি আপনার ডিভাইসে নিউজ আপডেট পান, এখনই সাবস্ক্রাইব করুন।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...