বকেয়া বেতনের দাবিতে আন্দোলনে পানছড়ি কলেজের শিক্ষকরা

0

বকেয়া বেতন-ভাতা দাবিসহ নানা অনিয়মের অভিযোগ তুলে খাগড়াছড়ি জেলার পানছড়ি সরকারি ডিগ্রী কলেজে পাঠদানসহ পরীক্ষা নেওয়া বন্ধ করে দিয়েছেন আন্দোলনরত শিক্ষকরা। কয়েক মাস আগে থেকে এই কর্মসূচি চললেও ব্যবস্থা নেয়নি কর্তৃপক্ষ।

রোববার (২৪ মার্চ) সকালে খাগড়াছড়ি প্রেস ক্লাবে এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন কলেজের শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্য পরিষদ নেতৃবৃন্দ।

সংবাদ সম্মেলনে আন্দোলনরত অধ্যাপকরা বলেন, আমাদের দাবি নিয়ে স্থা্নীয় সাংসদ ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে লিখিত আবেদন করেও সাড়া পাইনি। কলেজের অংশ থেকে আমাদের সম্মানি দেওয়া হচ্ছে না। অথচ অধ্যক্ষ সাহেব প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বকেয়া বেতনসহ পরিক্ষার ফি বাবদ ১৯০০ টাকা করে নিয়েছেন। আমাদের বেতন না দিয়ে অধ্যক্ষ ছাত্র-ছাত্রীদের কাছ থেকে আদায়কৃত টাকা আত্মসাৎ করার চেষ্টা করছেন।

পানছড়ি সরকারি ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ সমির দত্ত চাকমা জয়নিউজকে জানান, ২০১৮ সালের জুন মাসে কলেজটি জাতীয়করণ করার পর, ওই বছরের জুলাই পর্যন্ত শিক্ষকদের মাঝে বেতন-ভাতা পরিশোধ করা হয়। এরপর থেকে তাদের সরকারিভাবে বেতন পাওয়ার কথা রয়েছে। এখন শিক্ষকরা কলেজ ফান্ড থেকে বেতন-ভাতা চাইছেন। কিন্তু প্রতিষ্ঠান প্রধান হিসেবে আমার টাকা দেওয়ার এখতিয়ার নেই। এজন্য কলেজ পরিচালনা পরিষদের অনুমতি লাগবে।

এদিকে গত ১৯ মার্চ একাদশ শ্রেণির প্রথম বর্ষের পরীক্ষা নেওয়ার কথা থাকলেও বয়কট কর্মসূচি থাকায় তা নেওয়া সম্ভব হয়নি। ২৩ মার্চ পরীক্ষা নেওয়ার পরবর্তী তারিখ ঘোষণা দেন অধ্যক্ষ। তবে ওই দিনও পরীক্ষা নেননি অধ্যাপকরা। যার কারণে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ শুরু করেন।

জয়নিউজ/জাফর/জুলফিকার
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...