চলন্ত বাসে চবি ছাত্রীকে যৌন হয়রানির চেষ্টা!

0

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) এক ছাত্রীকে চলন্ত বাসে হেলপার ও ড্রাইভার যৌন হয়রানির চেষ্টা করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ভুক্তভোগী ছাত্রী তার নিজ ফেসবুক ওয়ালে স্ট্যাটাস দিয়ে এ ঘটনার কথা উল্লেখ করেছেন। এদিকে এ ঘটনায় জড়িতদের শাস্তি দাবিতে মানববন্ধন করেছেন চবি শিক্ষার্থীরা।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) নগরের স্টেশন রোডে ৩নং বাসের এক হেলপার তাকে যৌন নিপীড়নের চেষ্টা করে। এসময় ওই ছাত্রী বাস থেকে লাফ দিয়ে নেমে যান। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের প্রথম বর্ষের ছাত্রী।

ওই ছাত্রীর ফেসবুক স্ট্যাটাস থেকে জানা যায়, তিনি ঘটনার দিন বিকেলে ক্লাস শেষ করে আনুমানিক ৩টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ১নং গেইট থেকে ৩নং বাসে উঠেন। বাসটি নগরের রিয়াজউদ্দিন বাজার এলাকায় পৌঁছালে ভুক্তভোগী ছাড়া সব যাত্রী একে একে নেমে গেলে তিনি অল্প দূরত্ব পর নিউমার্কেট মোড়ে নামার জন্য বাসেই অবস্থান করছিলেন। বাসে তাকে একা পেয়ে বাসটি হঠাৎ করে রাস্তা বদল করে স্টেশন রোডের দিকে চলতে শুরু করে। তখন ভুক্তভোগী মেয়েটি নিরাপত্তার স্বার্থে বাস ড্রাইভারকে বাস থামাতে বললে বাসের হেলপার তার দিকে ধেয়ে যায় এবং তার গলায় ওড়না পেঁচিয়ে তার শ্বাসরোধ করার চেষ্টা করে, সেসময় দম বন্ধ হয়ে আসলে কিছুক্ষণ হাতাহাতির পর মেয়েটি আত্মরক্ষার্থে তার হাতে থাকা মোবাইল দিয়ে হেলপারকে আঘাত করে চলন্ত বাস থেকেই প্রাণরক্ষার্থে লাফ দেন। ঘটনার সময় বাসের ড্রাইভারও মেয়েটিকে ‘ধর মেয়েটারে’বলে হেলপারকে উৎসাহ যোগায়। পরে এক রিকশাওয়ালার সাহায্যে শরীরে আঘাতের চিহ্ন নিয়ে বাসায় ফেরেন ওই ছাত্রী।

এ বিষয়ে চবি প্রক্টর অধ্যাপক আলী আজগর চৌধুরী বলেন, ওই মেয়ে ও তার বাবার সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। আর এ ঘটনায় কোতোয়ালি থানা পুলিশ ইতোমধ্যে তদন্ত শুরু করেছে।

এদিকে এ ঘটনায় জড়িতদের শাস্তি দাবিতে মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। শুক্রবার জুমার নামাজের পরে ক্যাম্পাসের জিরো পয়েন্টে জড়িতদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন করে তারা।

জয়নিউজ/নবাব/বিশু

সরাসরি আপনার ডিভাইসে নিউজ আপডেট পান, এখনই সাবস্ক্রাইব করুন।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...