ত্রিপুরাপল্লীর শিশুদের কাপড় দিলো জেলা প্রশাসন

0

হাটহাজারীর ফরহাদাবাদ ত্রিপুরা পাড়ায় অজ্ঞাত রোগে আক্রান্ত হয়ে চার শিশু মৃত্যুর পর হাসপাতালে ভর্তি ২৪ শিশুকে কাপড় দিয়েছে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন। বুধবার (২৯ আগস্ট) সকালে ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমান এসব শিশুদের হাতে কাপড় তুলে দেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আক্তার উননেছা শিউলী, উপজেলা স্বাস্থ্য, পরিবার ও পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. ইমতিয়াজ হোসাইন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা নিয়াজ মোর্শেদ।

হাবিবুর রহমান জয়নিউজকে জানান, ত্রিপুরাপল্লীর সমস্যাগুলো সমাধানের জন্য প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে বিভিন্ন নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে ত্রিপুড়া পাড়ার ৫২ পরিবারের মাঝে ২০ কেজি করে চাল, নগদ টাকা, মশারি দেওয়া হয়েছে। পানি সংকট নিরেসনে ৩টি গভীর নলকূপ এবং ২৬টি টয়লেট বসানো হচ্ছে।

প্রসঙ্গত ২১ আগস্ট অন্ন রায় ত্রিপুরা (৫), কিশামনি ত্রিপুরা (৩) এবং ২৪ অগাস্ট সৌম্য রায় ত্রিপুরা (৪) মারা যায়। পরবর্তীতে ২৬ আগস্ট মারা যায় অন্ন ত্রিপুরা (৮)। পরবর্তীতে বিষয়টি জানাজানি হলে হাটহাজারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তারা এলাকা পরিদর্শনে যান এবং ২৮ শিশুকে এনে হাসপাতালে ভর্তি করান।

ইতিমধ্যে প্রাথমিকভাবে আক্রান্ত শিশুদের রক্তের নমুনা পরীক্ষা করে রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর) জানায়, হামে তাদের মৃত্যু হয়েছে।

এর আগে গত বছরের জুলাইয়ে সীতাকুণ্ডের পাহাড়ি ত্রিপুরা পল্লীতে ‘অজ্ঞাত রোগে’ আক্রান্ত হয়ে নয় শিশু মারা গিয়েছিল। এছাড়া পরবর্তীতে ওই রোগে আক্রান্ত আরও অর্ধশতাধিক শিশু চট্টগ্রামের হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছিল।

তাদের শরীরের লক্ষণগুলোও হাটহাজারীতে আক্রান্ত শিশুদের মতোই ছিল।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...