চলন্ত বাস থেকে চবি ছাত্রীকে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ

0

চলন্ত বাসে যৌন হয়রানির ঘটনার রেশ না কাটতেই আবার আক্রান্ত হয়েছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ছাত্রী। এবার চবির এক ছাত্রীকে বাস থেকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে এক বাসের চালক ও সহকারীর বিরুদ্ধে। এ বিষয়ে নগরের পাঁচলাইশ মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর বন্ধু।

চবি সমাজতত্ত্ব বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী রাশিদ শাহরিয়ারের দায়ের করা অভিযোগপত্রে বলা হয়, গত ২৩ এপ্রিল (মঙ্গলবার) রাত ৯.৪৫ মিনিটে আমার বান্ধবী একই বর্ষের আফসানা ফেরদৌসের সঙ্গে ১০ নম্বর বাসে নগরীর জিইসি মোড় থেকে মুরাদপুর আসছিলাম। মুরাদপুর আসার পর আমি নেমে যাই, তবে আমার বান্ধবী নামার আগেই বাস ছেড়ে দেয়। কিছুদূর যাওয়ার পর আমার বান্ধবীকে চলন্ত বাস থেকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেওয়া হয়। আমার বান্ধবী এতে আহত হয়। ঘটনার সঙ্গে বাসের হেলপার ও ড্রাইভার সরাসরি যুক্ত ছিল।

মামলার বিষয়ে রাশিদ শাহরিয়ার জয়নিউজকে বলেন, আমাদের নেমে যাওয়ার জন্য বাস থামায়নি, স্লো করেছিল মাত্র। আমি চলন্ত বাস থেকে নামলেও আমার বান্ধবী নামতে ভয় পাচ্ছিল। সে বাস থামাতে বললে চালক তার ওপর ক্ষেপে যায়। একপর্যায়ে হেলপার তাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয়। ওই ঘটনায় আফসানার হাত ও পায়ের বিভিন্ন অংশ ছিড়ে যায় ও রক্ত পড়তে থাকে। তাৎক্ষণিক তাকে পার্শ্ববর্তী একটি ফার্মেসিতে থাকা ডাক্তারকে দেখানো হয়। আমরা এ ঘটনায় দোষিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।

পাঁচলাইশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কাশেম ভূঁইয়া জয়নিউজকে বলেন, আমরা অভিযোগ পেয়েছি। আময়া বাসটি শনাক্তের চেষ্টা করছি। তবে মেয়েটি ওই বাসের নম্বর জানে না। বাস শনাক্ত হলে ড্রাইভার ও হেলপারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিব।

জয়নিউজ/নবাব/জুলফিকার
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...