পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে বিমানে ইয়াবা পাচার!

0

তিনি যাতায়াত করেন বিমানযোগে। সঙ্গে রাখেন একাডেমিক সনদপত্র ও পাসপোর্ট। পুলিশের চোখকে ধোঁকা দিতেই এত আয়োজন। কারণ তার আসল উদ্দেশ্য ইয়াবা পাচার। তবে এবার শেষ রক্ষা হয়নি নাঈমা তালুকদারের (৩০)। ঠিকই ধরা পড়েছেন পুলিশের হাতে।

সোমবার (৬ মে) বিকেল পৌনে ৬টার দিকে শাহ আমানত সেতু থেকে ১ হাজার ২০০ পিস ইয়াবা ও ইয়াবা বিক্রির নগদ ২৪ হাজার ৫৩৫ টাকা ও ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের একটি ডেবিট কার্ডসহ তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। গ্রেপ্তার নাঈমা টাঙ্গাইলের ভারইচর পাড়া গ্রামের মো. শফিকুর ইসলামের স্ত্রী।

বাকলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নেজাম উদ্দিন জয়নিউজকে বলেন, পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে নাঈমা সবসময় একাডেমিক সনদপত্র ও পাসপোর্ট সঙ্গে রাখে এবং বিমানে যাতায়াত করে। কিন্তু তার আসল উদ্দেশ্য ইয়াবা পাচার করা। বিমানের টিকেট না পাওয়ায় সোমবার সে সড়কপথে ইয়াবা নিয়ে আসছিল। পুলিশের কাছে ধরা পড়ার পর সে বলে চাকরির সাক্ষাতকার দিতে যাচ্ছেন। পরে তার শরীর তল্লাশি করে ১ হাজার ২০০ পিস ইয়াবা পাওয়া যায়।

তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা করা হয়েছে বলেও জানান এ কর্মকর্তা।

জয়নিউজ/রুবেল/শহীদ
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...