খুনি ও অর্থ পাচারকারীদের শাস্তি হবে: প্রধানমন্ত্রী

0

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের দিকে ইঙ্গিত করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, খুনি ও অর্থ পাচারকারীদের অবশ্যই শাস্তি হবে। বৃহস্পতিবার (৯ মে) লন্ডনের তাজ হোটেলে এক মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন। আওয়ামী লীগ যুক্তরাজ্য শাখা ও দলের সহযোগী সংগঠনগুলো এই সভার আয়োজন করে।
শেখ হাসিনা বলেন, খালেদা জিয়ার ছেলে তারেক বর্তমানে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছেন। তাকে দেশে ফেরাতে নানা তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে সরকার।
তিনি বলেন, আমরা বঙ্গবন্ধুর খুনি ও যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করেছি। খুনি ও অর্থ পাচারকারীরা যেখানেই লুকিয়ে থাকুক, যত টাকাই খরচ করুক, তাদের কোনো ক্ষমা নেই। জাতি তাদের ক্ষমা করবে না।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, আদালত খুনি ও অর্থপাচারকারীদের বিরুদ্ধে রায় দিয়েছে। আমরা এই রায় কার্যকরের পদক্ষেপ নেব। তারা যত স্লোগানই দিক, যত তিরস্কারই করুক, তাদের অবশ্যই শাস্তি হবে।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, তারা অবৈধভাবে, এতিমের টাকা চুরি করে, মুদ্রা পাচার করে প্রচুর সম্পদের মালিক হয়েছে। এদের অবশ্যই শাস্তি হবে।
গত নির্বাচনে বিএনপির ভরাডুবি প্রসঙ্গে সরকারপ্রধান বলেন, মিথ্যা নিয়ে কারবার করাই বিএনপির ব্যবসা। বিএনপি সকালে একজনকে মনোনয়ন দিয়েছে, বিকালে আরেকজনকে দিয়েছে। টাকা দিয়ে মনোনয়ন বিক্রি করেছে। লন্ডনে এবং দেশের বাইরে অন্যান্য জায়গায় বাণিজ্য হয়েছে। একেক প্রার্থীর কাছ থেকে কোটি কোটি টাকা নিয়েছে। ৩০০ আসনে ৬০০ এর বেশি মনোনয়ন দিয়েছে।
মিথ্যা নিয়ে কারবার করাই বিএনপির ব্যবসা।
জয়নিউজ/আরসি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...