শ্বশুরবাড়ি থেকে সেমাই-চিনি আসেনি তাই…

0

ঈদের দিনের জন্য বাপের বাড়ির থেকে নতুন জামা- কাপড়সহ সেমাই চিনি ও ঈদ সামগ্রী না দেওয়ায় গৃহবধূ আসমা আক্তারকে (২৩) পেটানোর অভিযোগ উঠেছে স্বামী ও শ্বশুর বাড়ির লোকজনের বিরুদ্ধে।

বৃহস্পতিবার (৬ জুন) বিকেলে রামগঞ্জের ভাটরা ইউনিয়নের জয়দেবপুরের মসজিদ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

আসমা উপজেলার ভোলাকোট ইউনিয়নের সাহারপাড়ার পূর্ব ফকির বাড়ির মৃত আবুল বাশারের মেয়ে।

আহত আসমা আক্তার জয়নিউজকে বলেন, ২০১১ সালে তার সঙ্গে পার্শ্ববর্তী জয়দেবপুর গ্রামের মসজিদ বাড়ি শাহাবুদ্দিনের ছেলে কামাল হোসেনের সঙ্গে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে কয়েকবার তার স্বামী কামাল হোসেনের দাবি অনুযায়ী ৫০ হাজার টাকা দেওয়ার পরও ঈদের আগে বাপের বাড়ির থেকে সেমাই, চিনি ও জামা কাপড় না দেওয়ায় তাকে স্বামী কামাল হোসেন, শ্বশুর শাহাবুদ্দিন ও দেবর জামাল হোসেন মারধর করে।

মারধরে অচেতন হয়ে পড়লে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে আসেন।

এ ব্যাপারে আসমার স্বামী কামাল হোসেনের সঙ্গে বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

রামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আনোয়ার হোসেন জয়নিউজকে বলেন, এ বিষয়ে থানায় কোনো অভিযোগ দেননি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জয়নিউজ/আতোয়ার/বিশু
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...