ট্রান্সফরমার ত্রুটিতে কেপিএমে উৎপাদন বন্ধ

0

কর্ণফুলী পেপার মিলস লিমিটেডের (কেপিএম) গ্রিড সাব-স্টেশনে ট্রান্সফরমারে ত্রুটিজনিত কারণে মিলসহ আবাসিক এলাকা বিদ্যুৎবিহীন অবস্থায় রয়েছে চারদিন ধরে। বন্ধ রয়েছে মিলের উৎপাদনও।

এদিকে বিদ্যুতের অভাবে আবাসিক এলাকায় পানি সরবরাহ না থাকায় পানির জন্য চলছে হাহাকার। কবে নাগাদ বিদ্যুৎ সমস্যার সমাধান হবে সে বিষয়ে সঠিক কোনো তথ্য দিতে পারছেনা মিল কর্তৃপক্ষ।

মিল সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার (২ জুলাই) রাত প্রায় পৌনে ৮টার সময় ক্রুটিজনিত কারণে কেপিএমের গ্রিড সাব-স্টেশনের একটি ট্রান্সফরমার বিস্ফোরণ ঘটে।

এতে মিলসহ আবাসিক এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। সমগ্র এলাকায় বিদ্যুৎ ও পানিবিহীন থাকায় জনদুর্ভোগ চরমে উঠেছে।

পানি নিতে আসা কয়েকজন মহিলা জয়নিউজকে জানান, পানির জন্য এমন কষ্ট জীবনে করিনি। এটা একটা মহাবিপর্যয় বলে তারা মন্তব্য করেন। হঠাৎ পানি টানতে গিয়ে অনেকে অসুস্থ পড়েছে বলে তারা জানান।

বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, ট্রান্সফরমারের ইন্সুলেশন ওয়েল প্রতি ১০-১৫ বছর অন্তর পরিবর্তনের নিয়ম থাকলেও মিল প্রতিষ্ঠার সময় লাগানো ট্রান্সফরমারের ইন্সুলেশন অয়েল পরিবর্তন করা হয়নি।

ইন্সলেশন অয়েল ট্রান্সফরমারের ভিতরের কয়েল ঠাণ্ডা ও সুরক্ষিত রাখে। ইন্সুলেশন অয়েল ত্রুটির কারণেও এধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে ওই সূত্র জানায়।

কেপিএমের মহাব্যবস্থাপক (এমটিএস) স্বপন কুমার সরকার জয়নিউজকে বলেন, আমাদের ইনকামিং ১০ কেভি ভোল্টেজের ট্রান্সফরমার ত্রুটির ফলে সমগ্র কেপিএম জুড়েই বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। ইতোমধ্যে পিডিবি থেকে অভিজ্ঞ দুইজন কর্মকর্তাকে ঘটনাস্থলে আনা হয়েছে।

ত্রুটি চিহ্নিত করে দ্রুত সমাধানের চেষ্টা করা হচ্ছে। বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া সম্ভব হলে সব স্বাভাবিক হয়ে যাবে।

এব্যাপারে মিলের এমডি ড. এমএমএ কাদেরের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ট্রান্সফরমার ত্রুটির কারণে সমগ্র মিল এলাকা অন্ধকারে রয়েছে।

প্রায় ৭০ বছর আগে প্রতিষ্ঠিত কেপিএমের যন্ত্রাংশগুলো জরাজীর্ণ অবস্থায় আছে। অন্য ট্রান্সফরমারের যন্ত্রাংশ খুলে এনে ত্রুটিযুক্ত ট্রান্সফরমার মেরামতে প্রচেষ্টা করা হচ্ছে।

জয়নিউজ/বিআর

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...