ফয়’সলেকে পাহাড় থেকে ১০০ পরিবার উচ্ছেদ

0

নগরের ফয়’সলেক এলাকার শান্তিনগর পাহাড়ে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে বাস করা ১০০ পরিবারকে উচ্ছেদ করেছে জেলা প্রশাসন। এসময় পাহাড় কেটে অবৈধভাবে গড়ে উঠা বসতঘরগুলো ভেঙে দেওয়া হয়।

বুধবার (১০ জুলাই) পতেঙ্গা সার্কেলের সহকারী কমিশনার (ভূমি) তাহমিলুর রহমান, সদর সার্কেলের সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. ইসমাইল হোসেন ও কাট্টলী সার্কেলের সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. তৌহিদুল ইসলাম এ অভিযান পরিচালনা করেন।

কাট্টলী সার্কেলের সহকারী কমশিনার (ভূমি) মো. তৌহিদুল ইসলাম জয়নিউজকে বলেন, পাহাড় ব্যবস্থাপনা কমিটির তালিকা অনুযায়ী ১৭টি ঝুঁকিপূঁর্ণ পাহাড়ে ৮৩৫টি পরিবার চিহ্নিত করে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় ফয়’সলেক এলাকার পাহাড়গুলোতে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে অবৈধভাবে বসবাসরত ১০০ পরিবারকে উচ্ছেদ করা হয়। সেখানের অবৈধ স্থাপনাগুলোও ভেঙে দেওয়া হয়।

তিনি আরো বলেন, এখানে পাহাড় কেটে ঝুঁকিপূর্ণভাবে পরিবারগুলো বসবাস করছে। আমরা অভিযান পরিচালনা করতে এসে পাহাড় কাটার এমন ভয়াবহ চিত্র দেখে পরিবেশ অধিদফতরের কর্মকর্তাদের খবর পাঠাই। উনারা ঘটনাস্থলে এলে অবৈধভাবে পাহাড় কাটার প্রমাণ পাওয়ায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পরিবেশ আইনে মামলা করার জন্য আমরা সুপারিশ করি।

প্রসঙ্গত, পাহাড় ব্যবস্থাপনা কমিটির তালিকা অনুযায়ী ১৭টি ঝুঁকিপূঁর্ণ পাহাড়ে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে ৮৩৫টি পরিবার বসবাস করছে। গত ১৬ মে পাহাড় ব্যবস্থাপনা কমিটির ১৯তম সভায় এসব পরিবারকে ১৫ জুনের মধ্যে উচ্ছেদ করার নির্দেশ দেন বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান।

উচ্ছেদ অভিযানের দ্বিতীয় পর্যায় প্রথম দিনে (৩ জুলাই) পরিবেশ অধিদফতর সংলগ্ন পাহাড় থেকে ৫০টি পরিবার, দ্বিতীয় দিন (৭ জুলাই) জালালাবাদ আবাসিক এলাকার মধু শাহ পাহাড় থেকে ৩৪টি পরিবার, চতুর্থ দিন (৯ জুলাই) আমিন জুট মিল এলাকার টাংকির পাহাড় থেকে ১৬টি পরিবার, আজ (১০ জুলাই) উচ্ছেদের পঞ্চম দিন ফয়’সলেকের শান্তিনগর পাহাড় থেকে ১০০ পরিবারকে উচ্ছেদ করা হয়।

আগামী ১৭ জুলাই পর্যন্ত বাকি পাহাড়গুলোতে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হবে জানায় জেলা প্রশাসন।

জয়নিউজ/রিফাত/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...