বিরাট স্বপ্নের সমাধি, ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম সেমিফাইনালে ১৮ রানে হেরে স্বপ্নের সমাধি হয়েছে বিরাট কোহলির ভারতের। কিউইদের দেওয়া ২৪০ রানের জবাবে ৪৯.৩ ওভারে সব উইকেট হারিয়ে ভারত সংগ্রহ করে ২২১ রান। এ নিয়ে দ্বিতীয়বার ফাইনালে উঠল কিউইরা।

ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্রাফোর্ডে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন কিউই দলপতি কেন উইলিয়ামসন। বৃষ্টির কারণে রিজার্ভ ডে’তে গড়িয়েছে ম্যাচটি। আগের দিন ৪৬.১ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে কিউইরা তোলে ২১১ রান। মঙ্গলবার আর খেলা না হওয়ায় ম্যাচের বাকি অংশ গড়ায় রিজার্ভ ডে’তে। বুধবার (১০ জুলাই) আবারো মাঠে নামে দুই দল। ৫০ ওভারে নিউজিল্যান্ড ৮ উইকেট হারিয়ে তোলে ২৩৯ রান।

রানআউট হওয়ার আগে নিউজিল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৪ রান করেন রস টেলর। দলপতি উইলিয়ামসন করেন ৬৭ রান।

ভারতের হয়ে ভুবনেশ্বর কুমার নেন তিন উইকেট। এছাড়া হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা, যুজবেন্দ্র চাহাল ও জসপ্রিত বুমরাহ নেন একটি করে উইকেট।

২৪০ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে ভারতের তিন ব্যাটসম্যান বিদায় নেন মাত্র ৫ রানে। এক আসরে সর্বোচ্চ পাঁচটি সেঞ্চুরি করে বিশ্বরেকর্ড গড়া রোহিত শর্মা ১, গত ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান লোকেশ রাহুল ১ ও র্যাং কিংয়ের এক নম্বর ব্যাটসম্যান ভারতীয় দলপতি বিরাট কোহলি ১ রান করে ফেরেন। দলীয় ২৪ রানের মাথায় ফেরেন ৬ রান করা দিনেশ কার্তিক। দলীয় ৭১ রানের মাথায় ৩২ রান করে বিদায় নেন রিশভ পান্ত। দলীয় ৯২ রানের মাথায় ৩২ রান করে বিদায় নেন হার্দিক পান্ডিয়া।

এরপর ১১৬ রানের জুটি গড়েন মহেন্দ্র সিং ধোনি-রবীন্দ্র জাদেজা। তাদের জুটিতে ভারত পায় ম্যাচ জয়ের সুবাস। কিন্তু ৪৮ ওভারে ৭৭ রান করে জাদেজা বিদায় নিলে চাপে পড়ে ভারত। আশার আলো হয়ে ছিলেন ধোনি। তবে ৪৯ ওভারে ৫০ রান নিয়ে ধোনি যখন রানআউটের শিকার হন তখন সমাধি হয় ভারতের ম্যাচ জয়ের আশা। শেষ ওভারে দরকার ছিল ২৩ রান। তৃতীয় বলে শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হন ৫ রান করা যুজবেন্দ্র চাহাল।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে তিন উইকেট নিয়েছেন ম্যাচসেরা ম্যাট হেনরি। মিচেল স্যান্টনার ও ট্রেন্ট বোল্ট নিয়েছেন দুই উইকেট করে। লকি ফার্গুসন ও জিমি নিশাম নেন একটি করে উইকেট।

জয়নিউজ/পিপিএন/এমজেএইচ
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...