পটিয়ায় খালভাঙন রোধের আশ্বাস পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রীর

0

পটিয়া উপজেলার মানুষকে খালভাঙন থেকে রক্ষার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল (অব.) জাহিদ ফারুক শামীম।

সোমবার (২২ জুলাই) দুপুরে পটিয়ার কালিগঞ্জ ব্রিজ এলাকায় মালিয়ারা-বাকখাইন-ভান্ডারগাঁও বেড়িবাঁধ উদ্বোধন শেষে এক অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের নদীভাঙন এলাকার মানুষের কষ্ট দূর করতে ব্যাপক উন্নয়ন কাজ শুরু করেছেন। প্রতিটি জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডের অধীনে বেড়িবাঁধ নির্মাণ, স্লুইচগেইট নির্মাণ, খাল খনন, রাবার ড্যাম প্রকল্পসহ বিভিন্ন উন্নয়ন কাজ হাতে নিয়েছেন।

প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম বলেন, এলাকার উন্নয়নকে নিজেদের উন্নয়ন মনে করতে হবে। তাই ঠিকাদারের ওপর নির্ভর করে থাকলে চলবে না। কাজের বিষয়ে আপনারা নিজেরা খোঁজখবর নেবেন। কাজে কোনো ধরনের অনিয়ম হলে তার প্রতিবাদ এবং প্রতিরোধ করবেন। প্রয়োজনে আপনারা সরাসরি আমাকে বলবেন। কাজে কোনো ধরনের অনিয়ম বরদাস্ত করা হবে না। অনিয়ম হলে সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

আলোচনা সভা শেষে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী সম্প্রতি উপজেলায় পাহাড়ি ঢল, অতিবৃষ্টি ও জোয়ারের পানিতে ক্ষতিগ্রস্ত ভাটিখাইন, হাইদগাঁওসহ বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন করেন।

চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসনের সাংসদ ও জাতীয় সংসদের হুইপ সামশুল হক চৌধুরী বলেন, একশ’  কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত বেড়িবাঁধ ছাড়াও পটিয়াকে সুরক্ষায় রাখতে ১২শ‘ কোটি টাকার একটি মেগাপ্রকল্প অনুমোদনের চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে বলে জানান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক মাহফুজুর রহমান, চট্টগ্রাম দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চল প্রধান প্রকৌশলী মীর মোশারফ হোসেন, যুগ্ম সচিব মন্টু কুমার বিশ্বাস, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৗশলী শিবেন্দু খাস্তগীর, নির্বাহী প্রকৌশলী বিদ্যুৎ কুমার সাহা, পটিয়া পৌরসভার মেয়র অধ্যাপক হারুনুর রশিদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হাবিবুল হাসান, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান দেবব্রত দাশ দেবু, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আ ক ম শামসুজ্জামান চৌধুরী, দক্ষিণ জেলা যুবলীগ সভাপতি আ ম ম টিপু সুলতান চৌধুরী, পটিয়া উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ডা. তিমির বরণ চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বিজন চক্রবর্ত্তী, হুইপের উন্নয়ন সমন্বয়কারী আলমগীর খালেদ, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা মিজানুর রহমান, দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি তারেকুর রহমান তারেক ও যুগ্ম সম্পাদক মোহাম্মদ সোহেলসহ দলীয় নেতাকর্মীরা।

জয়নিউজ/কাউছার/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...