কমেছে মাছের দাম

0

বাজারে আগের বাড়তি দামেই বিক্রি হচ্ছে বেশিরভাগ সবজি। মাংসের দাম অপরিবর্তিত থাকলেও, কমেছে মাছের দাম।

শুক্রবার (২৬ জুলাই) নগরের কাজীর দেউড়ি, চকবাজার, রিয়াজউদ্দিন বাজার ঘুরে ক্রেতা-বিক্রেতার সঙ্গে কথা বলে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

সবজি ব্যবসায়ী ‍মিজান জয়নিউজকে বলেন, দেশের বিভিন্ন জেলায় বন্যা ও টানা বৃষ্টির কারণে সবজির দাম আগের মতো রয়েছে। সরবরাহ কম থাকায় কিছু বাড়তি দামেই সবজি বিক্রি করতে হচ্ছে।

বাজার ঘুরে দেখা যায়, প্রতি কেজি কাঁচা মরিচ ১৮০ টাকা, গাজর ৭০ টাকা, শসা ৮০ টাকা, করলা ৫০ টাকা, কাঁকরোল ৪০ টাকা, ঝিঙ্গা ৫০ টাকা, ঢ্যাঁড়শ ৬০ টাকা, পেঁপে ৪০ টাকা, পটল ৫০ টাকা, বেগুন ৭০ টাকা ও বরবটি ৮০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

এছাড়া বাজারে প্রতি আঁটি লালশাক ১৫ টাকায়, মুলাশাক ১০ টাকায়, কলমিশাক ২৫ টাকায়, পুঁইশাক ১৫ টাকায় ও লাউশাক ২০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

মাংসের বাজার ঘুরে দেখা গেছে, ব্রয়লার মুরগি প্রতি কেজি ১৩০ টাকায়, কক মুরগি ১৮০ টাকায়, লেয়ার মুরগি ২০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এদিকে গরুর মাংস বাজারভেদে প্রতি কেজি ৫৫০ টাকায় এবং খাসির মাংস ৮৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

কয়েক মাস ধরে চড়া দামে বিক্রি হওয়া মাছের দাম একটু কমেছে। বাজারে এখন বেশিরভাগে মাছের দাম ৫০ থেকে ১০০ টাকা পর্যন্ত কমেছে।

মাছবিক্রেতা মো. আলী জয়নিউজকে বলেন, বেশ কিছুদিন মাছের দাম চড়া ছিল। মাছধরার ওপর সরকারি নিষেধাজ্ঞা উঠে যাওয়ায় জেলেরা আবার সাগরে মাছ ধরা শুরু করেছে। আশা করছি, সামনে মাছের দাম আরো কমবে।

বাজারে তেলাপিয়া মাছ বিক্রি হচ্ছে ১৬০ টাকায়, পাঙাশ মাছ ১৮০ টাকায়, রুই মাছ ৩০০ টাকায়, কাতাল মাছ ৩২০ টাকায়, পাবদা মাছ ৫০০ টাকায়, শিং মাছ ৬০০ টাকায়, বোয়াল মাছ ৫০০ টাকায় ও চিতল মাছ ৪৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

জয়নিউজ/আরসি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...