শোকাবহ আগস্ট: চসিকের মাসব্যাপী কর্মসূচির উদ্বোধন

0

স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) মাসব্যাপী কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১ আগস্ট) সকালে নগরের থিয়েটার ইনস্টিটিউটে মাসব্যাপী অনুষ্ঠানমালার উদ্বোধন করেন নগরপিতা আ জ ম নাছির উদ্দীন। এই প্রথমবারের মত মাসব্যাপী শোক দিবসের কর্মসূচি গ্রহণ করেছে চসিক।

উদ্বোধনী বক্তব্যে মেয়র বলেন, বঙ্গবন্ধু কোনো ব্যক্তি বা দলের নয়, তিনি বাঙালি জাতি ও দেশের সম্পদ। বঙ্গবন্ধু ছিলেন আপাদমস্তক বাঙালি। বাঙালি জাতি তিন হাজার বছরের পুরনো জাতি। এই জাতির নিজস্ব ইতিহাস, ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি আছে। দুইশ’ বছর পর্যন্ত অনেকেই এ জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করার চেষ্টা করেছিল, কিন্তু পারে নাই। বঙ্গবন্ধুই একমাত্র নেতা, যিনি অল্প সময়ের মধ্যেই পুরো জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করেছিলেন এবং বাংলাদেশ নামে একটি ভুখন্ড আমাদের উপহার দিয়েছেন।

মেয়র বলেন, দেশ স্বাধীনের পর বঙ্গবন্ধু ১৯৭২ সালের ১০ জানুয়ারি দেশে ফিরে বলেছিলেন, আমি রাজনৈতিক স্বাধীনতা চাইনি। আমি চেয়েছিলাম, বাঙালির অর্থনৈতিক মুক্তি। তাঁর সেই স্বপ্ন বাস্তবায়নে বঙ্গবন্ধু যখন দেশ ও জাতির অর্থনৈতিক মুক্তির রূপরেখা প্রণয়ন করে বাস্তবায়ন করতে যাচ্ছিলেন ঠিক সেই মুহূর্তে কিছু উচ্চাভিলাসী সামরিক কর্মকর্তা, বেসামরিক আমলা ও রাজনীতিবিদ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে নির্মমভাবে হত্যা করে ইতিহাসের কলঙ্কময় অধ্যায়ের সৃষ্টি করে।

তিনি আরো বলেন, শুধু তাই নয় তারা বঙ্গবন্ধুর নাম ইতিহাস থেকে মুছে ফেলারও চেষ্টা করে। কিন্তু চক্রান্ত ও ষড়যন্ত্রকারীদের সেই প্রচেষ্টা সফল হয়নি। যে মানুষ বিবেকদ্বারা পরিচালিত, সেই মানুষ বঙ্গবন্ধুকে অস্বীকার করতে পারে না।

সভায় সভাপতিত্ব করেন চসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামসুদ্দোহা। এতে বক্তব্য রাখেন প্যানেল মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, শিক্ষা স্বাস্থ্য স্থায়ী কমিটির সভাপতি কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক, হাসান মুরাদ বিপ্লব, সাইয়্যেদ গোলাম হায়দার মিন্টু, আবদুল কাদের, সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর আঞ্জুমান আরা বেগম, চসিক সচিব আবু শাহেদ চৌধুরী, প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা সুমন বড়ুয়া, মেয়রের একান্ত সচিব আবুল হাশেম।

এতে উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর এ এফ কবির আহমদ মানিক, এইচ এম সোহেল, এম আশরাফুল আলম, সফিউল আলম, সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবিদা আজাদ, লুৎফুন্নেসা দোভাষ বেবী, ফারহানা জাবেদ, ফারজানা পারভীন, আফরোজা কালাম, চসিক প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্ণেল মহিউদ্দিন আহমদ, নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আফিয়া আখতার, স্পেশাল ম্যাজিষ্ট্রেট (যুগ্ম জেলা জজ) জাহানারা ফেরদৌস প্রমুখ।

শোক দিবস উপলক্ষে মাসব্যাপী চসিকের চিকিৎসা সেবা শুরু
জাতীয় শোক দিবস ২০১৯- এর অংশ হিসেবে মাসব্যাপী ফ্রি স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের উদ্যোগ নিয়েছে চসিক। নগরপিতা আ জ ম নাছির উদ্দীনের নির্দেশক্রমে এই কর্মসূচি গ্রহণ করে চসিক স্বাস্থ্য বিভাগ।

বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) সকালে চসিক জেনারেল হাসপাতালে ফ্রি স্বাস্থ্য কার্যক্রম শুরু হয়। এই কার্যক্রম উদ্বোধন করেন প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকতা ডাক্তার সেলিম আকতার চৌধুরী।

এতে স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার মোহাম্মদ আলী, চসিক জেনারেল ইনচার্জ ডাক্তার ইসরাত জাহান, মেমন ইনচার্জ ডাক্তার আশীষ মুর্খাজিসহ বিপুল সংখ্যক চিকিৎসক উপস্থিত ছিলেন।

চসিক জেনারেল হাসপাতালের ফ্রি এই চিকিৎসা সেবা ৩১শে আগস্ট পর্যন্ত চলবে। এছাড়া ১৫ই আগস্ট জাতির জনকের শাহাদাত বার্ষিকীর দিন উপলক্ষে জেনারেল হাসপাতালে ফ্রি বিশেষ স্বাস্থ্য সেবাদানের কর্মসূচি গ্রহন করেছে চসিক।

এছাড়া ওই দিন জেনারেল হাসপাতালে আগত রোগীদের বিনামূল্যে ডেঙ্গুর রক্ত পরীক্ষা, রক্তের গ্রুপ পরীক্ষা নির্ণয়, ডায়াবেটিক পরীক্ষা, খতনা, মেডিকেল টেস্ট ও প্রাথমিক চিকিৎসাসহ অন্যান্য রোগের চিকিৎসা প্রদান করবে চসিক।

চসিকের জেনারেল হাসপাতালের পাশাপাশি ১৫ই আগস্টে নগরের আরবান প্রাইমারী হেলথ সেন্টারেও রক্তদান কর্মসূচিসহ ফ্রি মেডিকেল টেস্ট ও স্বাস্থ্য চিকিৎসা প্রদান করা হবে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে চসিক স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্যোগে ফ্রি স্বাস্থ্য সেবা গ্রহন করার জন্য নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন চসিক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন।

জয়নিউজ/আরডি/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...