ঈদের দিনেও বৃষ্টির সম্ভাবনা

0

চার দিন পরেই পালিত হবে ঈদুল আজহা। এরমধ্যেই দেশের কোথাও কোথাও অল্প সময়ের জন্য ভারী বৃষ্টি হয়েছে। বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের প্রভাবে সাগর উত্তাল রয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে জানা গেছে, বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের ফলে চট্টগ্রাম, মংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দর এবং কক্সবাজার উপকূলীয় এলাকাকে ৩ নম্বর সতর্কসংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। এমন আবহাওয়া আরও এক সপ্তাহের মতো থাকতে পারে। সে রকম হলে ঈদের দিনও বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

উত্তর বঙ্গোপসাগর, বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গ উপকূলীয় এলাকায় অবস্থানরত নিম্নচাপটি গভীর নিম্নচাপ আকারে ভারতের ওডিশা উপকূলের দিকে এগিয়ে গেছে। নিম্নচাপটি সাইক্লোনে রূপ নেওয়ার সম্ভাবনা নেই।

তবে শনিবার থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন স্থানে হালকা থেকে মাঝারি মাত্রার বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

এদিকে বুধবার দুপুরে আবহাওয়া অধিদপ্তরের বিশেষ বুলেটিনে জানানো হয়, নিম্নচাপের প্রভাবে দেশের উপকূলীয় এলাকার ওপর দিয়ে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।

মৌসুমী গভীর নিম্নচাপ কেন্দ্রের ৪৮ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৫০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝোড়ো হাওয়ার আকারে ৬০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। মৌসুমী গভীর নিম্নচাপ কেন্দ্রের নিকটবর্তী এলাকায় সাগর অনেকটাই উত্তাল। এ জন্য উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌযানগুলোকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

জয়নিউজ/বিআর

সরাসরি আপনার ডিভাইসে নিউজ আপডেট পান, এখনই সাবস্ক্রাইব করুন।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...