‘সবুজ ঢাল’ ছাড়া নামজারির আবেদন নয়!

0

নামজারি করতে হাটহাজারী উপজেলা সহকারী ভূমি কমিশনার অফিসের দ্বারস্থ হতে হয় স্থানীয় ভূমি মালিকদের। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে ভূমি অফিসের কিছু অসাধু কর্মকর্তা-কর্মচারীরা মিলে চালু করেছে সরকারি নিয়মবহির্ভূত এক ব্যতিক্রমী সবুজ কাভারের (ঢাল) নিয়ম। এ নিয়ম অনুসরণ না করলে আবেদন গ্রহণ করা হয় না।

ভুক্তভোগীরা জানান, ‘গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার’- লেখা সম্বলিত ও সরকারি মনোগ্রামযুক্ত প্রিন্ট করা সবুজ ঢাল দিয়ে নামজারির আবেদন জমা দিতে হয় উপজেলা ভূমি অফিসে। অন্যথায় ভূমি অফিসের কর্মকর্তারা তাদের নামজারি আবেদন গ্রহণ করেন না। তাই বাধ্য হয়ে ৮-১০ টাকা মূল্যের সবুজ ঢালটি চড়াদামে ৮০ টাকা দিয়ে স্থানীয় দোকান থেকে তাদের ক্রয় করতে হচ্ছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, উপজেলা ভূমি অফিসের সঙ্গে জান্নাত টেলিকম, সেবা এন্টারপ্রাইজ, কেএস কম্পিউটার, আল-আরব এন্টারপ্রাইজ, চৌধুরী ডির্পাটমেন্টাল স্টোর নামে এসব দোকানে সরকারি মনোগ্রামযুক্ত সবুজ ঢাল ৮০ টাকা ধরে বিক্রি হচ্ছে।

রোববার (১৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে এ এলাকার এক দোকানির কাছে সরকারি মনোগ্রামযুক্ত এ ধরণের সবুজ ঢালের উৎস সর্ম্পকে জানতে চাইলে নাম প্রকাশ না করা শর্তে তিনি জয়নিউজকে জানান, এসব ফাইল তারা ভূমি অফিস থেকে প্রতি পিচ ৭০ টাকা দামে নগদ টাকায় কিনে আনেন। ভূমি অফিসের কোন কর্মকর্তার কাছ থেকে এসব ঢাল আনা হয়- তা জানতে চাইলে দোকানি ব্যবসার স্বার্থে ওই কর্মকর্তার নাম বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন।

জানা যায়, নিয়ম বহির্ভূতভাবে ভূমি অফিসে দীর্ঘসময় ধরে চলে আসা এ নিয়ম নিয়ে কোনো কার্যকর পদক্ষেপ এখন পর্যন্ত গ্রহণ করেনি সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ।

নির্ধারিত ঢাল ছাড়া নামজারির আবেদন কেন গ্রহণ করা হয় না- এমনটা জানতে চাইলে হাটহাজারী উপজেলা সহকারী ভূমি কমিশনার সম্রাট খিসা মুঠোফোনে জয়নিউজকে জানান, এ বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে ভূমি মালিকরা নামজারির জন্য নির্ধারিত ফরম ডাউনলোডপূর্বক পূরণ করে দিলে আমরা তার আবেদন গ্রহণ করি।

তবে ভূমি মালিকদের নামজারি আবেদনের সঙ্গে দেওয়া কাগজপত্রগুলো যাতে সংরক্ষিত থাকে তার জন্য একটি সবুজ ঢাল আমরা দিয়ে থাকি। ওই ঢাল দেওয়ার বিনিময়ে কোনো অর্থ আদায় করা হয় কিনা- জানতে চাইলে তিনি আরও জানান, নামজারি আবেদন করতে আসা ভূমি মালিকদের বিনামূল্যে ওই সবুজ ঢালটি সরবরাহ করা হয়।

এদিকে ধলই ইউনিয়ন থেকে নামজারি আবেদন করতে আসা মো. সরওয়ার আলম নামে এক প্রবাসী ক্ষোভ প্রকাশ করে জয়নিউজকে বলেন, যদি ভূমি অফিস থেকে সবুজ ঢালটি বিনামূল্যে সরবরাহ করে তাহলে দোকানিরা কেন ৮০ টাকা মূল্যে বিক্রি করবে। তাছাড়া আমরা কেনইবা বিনামূল্যে সংগ্রহ না করে দোকান থেকে কিনতে যাব? সত্যি কথা বলতে কি, আমরা যখন আবেদন জমা দিতে আসি তখন ভূমি অফিসের কর্মকর্তারা ওই নির্ধারিত সবুজ ঢালে করে আমাদেরকে নামজারি আবেদন জমা করতে বলে।

জয়নিউজ/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...