হাটহাজারীতে গৃহবধূ ধর্ষণ মামলায় ৩ জনের কারাদণ্ড

0

হাটহাজারীতে গৃহবধূকে দলবেঁধে ধর্ষণ মামলায় ৩ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

রোববার (২৯ সেপ্টেম্বর)চট্টগ্রাম নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২ এর বিচারক মোতাহির আলী এ রায় দেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন মো. সোহেল (৩০), মো. মহিউদ্দিন (২৮) ও ফয়েজ আহাম্মদ (৩০)। তাদের সকলের গ্রামের বাড়ি হাটহাজারী উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নে।

মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এমএ নাসের জয়নিউজকে জানান, বাদী ও আসামিরা সবাই একই গ্রামের বাসিন্দা। আসামিদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আদালত প্রত্যেককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও পাঁচ হাজার টাকার করে অর্থদণ্ড দিয়েছেন।

মামলার নথি থেকে জানা যায়, ২০১৭ সালের ১৭ মে রাত সাড়ে ১২টার দিকে আসামিরা একটি বাড়িতে প্রবেশ করে শিশু সন্তানকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তার মাকে দলবেঁধে ধর্ষণ করে। এ ঘটনায় ধর্ষিত গৃহবধূর স্বামী বাদী হয়ে হাটহাজারী থানায় মামলা করেছিলেন।

মামলার পরপর পুলিশ সোহেল, মহিউদ্দিন ও ফয়েজকে গ্রেপ্তার করে এবং সোহেল ঘটনার দায় স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন। ওই বছরের ১৭ নভেম্বর পুলিশ আদালতে অভিযোগপত্র জমা দিলে ২০১৮ সালের ৪ অক্টোবর আদালত অভিযোগ গঠন করে।

ধর্ষিত গৃহবধূসহ ছয়জনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আদালত নারী ও শিশু নির্যাতন আইনের ৯(১) ধারায় তিনজনকে যাবজ্জীবন সাজা দিয়েছে বলে জানান মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এমএ নাসের।

আদালতের রায় শোনার পর মামলার বাদী ওই নারীর স্বামী সাংবাদিকদের কাছে তাৎক্ষনিক প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেন, তারা এই রায়ে সন্তুষ্ট। উচ্চ আদালতেও যেন এই রায় বহাল রাখেন।

জয়নিউজ/তালেব/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...