বন্দরে এসেছে ৩৬৪ টন পেঁয়াজ

0

পেঁয়াজের সরবরাহ বাড়ানো ও মূল্য স্বাভাবিক রাখতে এবার মিশর ও চীন থেকে ৩৬৪ টন পেঁয়াজ আমদানি করেছে তিনটি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান।

সোমবার (৩০ সেপ্টেম্বর)  জয়নিউজকে এই তথ্য জানিয়েছে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ সচিব ওমর ফারুক।

তিনি জয়নিউজকে বলেন, তিনটি প্রতিষ্ঠান  মিশর ও চীন থেকে ১৪টি কন্টেইনারে আনুমানিক ৩৬৪ টন পেঁয়াজ আমদানি করা হয়েছে। কন্টেইনারগুলো জাহাজ থেকে জেটিতে খালাস করা হয়েছে। শুল্কায়নের পর আমদানিকারকরা দুই একদিনের মধ্যে পেঁয়াজভর্তি কন্টেইনারগুলো ছাড় করিয়ে নিতে পারবেন।

বন্দর সচিব আরো বলেন, প্রতিষ্ঠানগুলো হলো জেনি এন্টারপ্রাইজ, এন এস ইন্টারন্যাশনাল ও হাফিজ করপোরেশন।এই তিন প্রতিষ্ঠান ১৪ কন্টেইনার পেঁয়াজ আমদানি করেছে।

চাক্তাই-খাতুনগঞ্জ আড়তদা্র সাধারণ ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো.মহিউদ্দীন জয়নিউজকে জানিয়েছেন, পেঁয়াজ  চীন ও মিশর এবং মিয়ানমার থেকে আমদানি করা হয়েছে । আশাকরি এভাবে পেঁয়াজ আমদানি করা হলে বাজারে পেঁয়াজের দাম কমবে।

তিনি বলেন আজ সকালে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তোহিদুল ইসলাম অভিযান পরিচালনা করার পর ১৫ থেকে ৩০ টাকা পেঁয়াজের দাম কমেছে। মিয়ানমারের পেঁয়াজ প্রতি কেজি ৬০ টাকা এবং ভারতের পেঁয়াজ প্রতি কেজি ৭০ থেকে ৭৫ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। আর মিশর ও চীনের পেঁয়াজ বাজারে আসলে আরো দাম কমে যাবে।

জয়নিউজ/কাউছার/পিডি

 

 

 

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...