পেঁয়াজকে পুঁজি করে লবণ নিয়ে গুজব, এরপর…

0

পেঁয়াজের দাম রেকর্ড ছুঁয়েছে। সর্বকালের সর্বোচ্চ দামে বিক্রি হয়েছে পেঁয়াজ। এ অবস্থায় এগিয়ে আসে টিসিবি (ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ)।

ডাবল সেঞ্চুরি করেও অপরাজিত থাকা পেঁয়াজ ৪৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি শুরু করে টিসিবি। মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) থেকে নগরের ৬টি থানায় শুরু হওয়া টিসিবির এ কার্যক্রম চলবে পেঁয়াজের দাম স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত।

এদিকে পেঁয়াজের বাজার স্থিতিশীল করতে সরকার যখন মরিয়া তখনই শুরু হয় লবণ নিয়ে গুজব। একটি মহল প্রচারণা চালায়, ‘পেঁয়াজের মতোই বাড়বে লবণের দাম।’ এ গুজব দ্রুত ছড়িয়ে পড়তে থাকে এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায়।

এ অবস্থায় তড়িৎ পদক্ষেপ নেয় সরকার। সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তর থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়, দেশে লবণের পর্যাপ্ত মজুদ আছে। তাই লবণের দাম বাড়ার কোনো কারণ নেই। এটি স্রেফ গুজব।

সরকারের এ ঘোষণা যে সত্যি তা প্রমাণ করতে বুধবার (২০ নভেম্বর) থেকে মাঠে নামে লবণ মালিক সমিতি। ট্রাকভর্তি লবণ নিয়ে সংগঠনের সদস্যরা নেমে পড়ে রাজপথে। ১ কেজির এক প্যাকেট লবণ তারা বিক্রি করছে ১৫ টাকায়।

১৫ টাকা কেজি দরে চলছে লবণ বিক্রি। ছবি: তৌহিদুল ইসলাম

বুধবার সরেজমিন চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সামনের রাস্তায় গিয়ে দেখা যায়, রাস্তার দু’পাশে দাঁড়িয়ে আছে দুটি ট্রাক। দুটি ট্রাকভর্তি ছিল লবণের প্যাকেটে।

দুপুর ১টা থেকে শুরু হয় লবণ বিক্রি। ১৫ টাকা কেজিতে লবণ পেতে সেখানে জড়ো হতে থাকে সাধারণ মানুষ।

ট্রাক থেকে লবণ কিনতে আসা আকমল নামে এক ব্যক্তি জয়নিউজকে বলেন, পেঁয়াজের দাম হঠাৎ বেড়ে গেছে। লবণের দামও বাড়তে পারে- এ আশঙ্কায় আমি তিন কেজি লবণ কিনে নিয়েছি।

১৫ টাকা কেজিতে লবণ পেতে সাধারণ মানুষের ভিড়

প্রেসক্লাবে ট্রাকের পাশেই ছিলেন লবণ মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোতাহের হোসেন চৌধুরী। তিনি জয়নিউজকে বলেন, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব ছড়ানো হয়েছে লবণের দাম বাড়বে। এটি যে শুধুই গুজব সাধারণ মানুষকে তা জানাতে আমরা ১৫ টাকা কেজিতে লবণ বিক্রি করতে মাঠে নেমেছি। আমাদের বিশ্বাস, জনগণ এবার বুঝতে পারবে একটি অসাধু মহল নিজেদের স্বার্থ সিদ্ধি করতে লবণ নিয়ে এই গুজব ছড়িয়েছে।

নগরের বিভিন্ন স্থানে লবণ মালিক সমিতির এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

জয়নিউজ/কাউছার

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...