জেল থেকে বের হয়ে ফের ছিনতাই, ৩ দিনে চৌদ্দ শিকে!

0

জেল থেকে ৩ দিন আগে মুক্তি পেয়ে ফের ছিনতাই করতে গেলে খালিদ উদ্দিন ইমন (১৮) নামে এক ছিনতাইকারিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। একই ঘটনায় তার সহযোগী সাকিবুল ইসলাম বাবুকে (১৮) আটক করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২৮ নভেম্বর) ভোরে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন-ইমন কুমিল্লার দাউদকান্দি মারুকা এলাকার আবদুর রউফের ছেলে ও বাবু ভোলার লালমোহন গাইমারা এলাকার মো. খাইরুল ইসলামের ছেলে। ইমন নগরের একটি কলেজের ১ম বর্ষের শিক্ষার্থী বলে জানায় পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বুধবার সন্ধ্যায় মহসিন কলেজের ছাত্র খালিদ মাহমুদ রিহাম রহমতগঞ্জ এলাকায় কোচিংয়ে যাচ্ছিলেন। রিহাম কুসুম কুমারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে পৌঁছালে ছিনতাইকারীরা তাকে ডাক দিয়ে পরিচয় জানতে চায়। এসময় কথা বলার একপর্যায়ে তারা রিহামের ব্যাগ ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে।

তখন রিহামের চিৎকারে পথচারীরা এগিয়ে এলে ছিনতাইকারীরা পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে পথচারীরা ছিনতাইকারী ইমনকে আটক করে। এসময় অন্যরা পালিয়ে যায়।

পরে খবর পেয়ে টহল পুলিশ ওই ছিনতাইকারীকে থানায় নিয়ে আসে। পরে জিজ্ঞাবাদে তার দেওয়া তথ্যে অভিযান চালিয়ে সাকিবুল ইসলাম বাবু নামে আরও এক ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করা হয়।

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন জয়নিউজকে বলেন, রিহাম নামের এক কলেজ ছাত্রের সঙ্গে কথা বলার ভান করে ব্যাগ ছিনতাইয়ের সময় ছিনতাইকারী চক্রের খালিদ উদ্দিন ইমনকে স্থানীয়রা আটক করে।

পরে ওই ছিনতাইকারীকে থানায় নিয়ে আসে টহল পুলিশ। তার দেওয়ার তথ্যের ভিত্তিতে এই চক্রের আরেক সদস্য সাকিবুল ইসলাম বাবুকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ওসি মহসীন আরও বলেন, গ্রেপ্তারকৃত আসামি খালিদ উদ্দিন ইমন গত তিনদিন আগে কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছিল। তাদের চক্রটি রাস্তায় পথচারীদের সঙ্গে কথা বলার ভান করে দীর্ঘদিন ধরে ছিনতাই করতো।

তারা রহমতগঞ্জ, বাংলা কলেজ, গুডস হিল, গণি বেকারি এলাকায় ছিনতাই করে থাকে। পথচারীদের সঙ্গে কথা বলার ছলে তারা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটায়।

জয়নিউজ/রিফাত/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...