প্রেমের টানে চট্টগ্রামে ব্রিটিশ নাগরিক!

0

প্রেম মানে না কোনো বাঁধা, মানে না কোনো ধর্ম-বর্ণ। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পরিচয়ে ভালোবাসার টানে হাজার হাজার কিলোমিটার দূর থেকে অনেকে উড়ে এসেছেন বাংলাদেশের গ্রামেগঞ্জে। ভালোবাসার টানে ঘর ছাড়ার ঘটনা সমাজে অহরহ দেখা গেলেও দেশ ছাড়ার ঘটনা এ আধুনিক যুগেও কিছুটা বিরল। এবার প্রেমের টানে ধর্ম ত্যাগ করলেন ব্রিটিশ নাগরিক গ্রাহাম স্টুয়ার্ট। ধর্ম ত্যাগ করে তার এখন নাম সাইমন কবির।

শুক্রবার (২৭ ডিসেম্বর) বিয়ে করেছেন ফেরদৌসী কবির মুক্তাকে।

সন্দ্বীপ উপজেলার হুমায়ুন কবির হেলালীর মেয়ে মুক্তা লন্ডনে পড়াশোনার সময় ব্রিটিশ নাগরিক গ্রাহামের সঙ্গে পরিচয় হয়। পরিচয় থেকে বন্ধুত্ব, বন্ধুত্ব থেকে প্রেম। সেই প্রেমের টানে মুক্তাকে বিয়ে করতে লন্ডন থেকে বাংলাদেশে ছুটে এসেছেন গ্রাহাম।

অবশেষে চার হাত এক হলো জমকালো আয়োজনে। বর্তমানে মুক্তার পরিবার থাকেন নগরের কোতোয়ালির লাভ লেন এলাকায়।

মুক্তার পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মুক্তা ২০১৭ সালে লন্ডনের নটিংহাম ইউনিভার্সিটিতে পড়তে যান। সেখানেই পরিচয় গ্রাহামের সঙ্গে। একপর্যায়ে বিয়ের প্রস্তাব দেন গ্রাহাম। তখন মুক্তা মা-বাবার মতামত, ধর্মীয় রীতিনীতি ও সামাজিকতার কথা বলেন। সবকিছু একবাক্যে মেনে নেন গ্রাহাম।

১৪ ডিসেম্বর গ্রাহাম বাংলাদেশে আসেন। ২৬ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হয় গায়ে হলুদ। ২৭ ডিসেম্বর নগরের রীমা কনভেনশন সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয় বিয়ে।

নতুন বউকে নিয়ে ২৯ ডিসেম্বর লন্ডন পাড়ি দেবেন গ্রাহাম ওরফে সাইমন কবির।

জয়নিউজ/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...