মোছলেম উদ্দীন চট্টগ্রাম-৮ আসনের ভোটার নয়: সুফিয়ান

0

আওয়ামী লীগের প্রার্থী মোছলেম উদ্দীন আহমেদ চট্টগ্রাম-৮ আসনের ভোটার নয় বলে মন্ত্রব্য করেছেন বিএনপির প্রার্থী আবু সুফিয়ান।

শনিবার (১১ জানুয়ারি) নগরের একটি রেস্টুরেন্টে চট্টগ্রাম ৮-আসনের বিএনপির প্রার্থী আবু সুফিয়ান সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় এ মন্তব্য করেন।

এসময় সুফিয়ান বলেন, মোছলেম উদ্দীন বোয়ালখালীর ভূমিপুত্র দাবি করেন কিন্তু চট্টগ্রাম-৮ আসনের ভোট দিতে পারবে না। কারণ তিনি নগরের লালখান বাজারের ভোটার। বোয়ালখালী নিয়ে মোছলেম উদ্দীনের কোনো স্বপ্ন থাকতো তাহলে অবশ্যই ভোটার হতেন।

জন্ম যেখানে হোক না কেন উল্লেখ করে সুফিয়ান বলেন আমার লেখাপড়া ও ব্যবসা, রাজনীতি, আত্মীয়তা সব কিছু চট্টগ্রাম-৮ আসনে। আমি যখন থেকে ভোটার হয়েছি তখন থেকে চট্টগ্রাম-৮ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) নিয়ে চিন্তা ভাবনা। আমি চট্টগ্রাম-৮ আসনে ভোট দেবো। আমৃত্যু আমি চান্দগাঁও আবাসিকে থাকবো।

গণমাধ্যমকর্মীদের উদ্দেশে সুফিয়ান বলেন, বোয়ালখালীতে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন হয়নি বলে নৌকার প্রার্থী বিভিন্ন গণমাধ্যমে জানিয়েছেন। ১১ বছর উনারা ক্ষমতায় ছিলেন, কিন্তু তারা কোনো উন্নয়ন করতে পারেননি।

সুফিয়ান আরও বলেন, আওয়ামী লীগ প্রার্থী বলেছেন নির্বাচিত হলে তিনি বোয়ালখালীকে সোনা দিয়ে মুড়ে দেবেন অথবা কালুরঘাট সেতু এক বছরের মধ্যে দৃশ্যমান করবেন, অনেক প্রতিশ্রুতি তিনি দিচ্ছেন। আমি নির্বাচনের ক্ষেত্রে কোনো প্রতিশ্রুতি দিতে চাই না। আমি একজন রাজনৈতিক কর্মী। একজন রাজপথ থেকে উঠে আসা কর্মী হিসেবে আমার কমিটমেন্ট হচ্ছে জনগণের প্রতি। রাজনীতিতে এসেছি একটা কমিটমেন্ট নিয়ে। সেটা হচ্ছে-দেশের জন্য, জনগণের জন্য কিছু করার প্রচেষ্টা।

মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপি ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, সংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম, নগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক আবুল হাশেম বক্কর।

মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এসএম ফজলুল হক, কেন্দ্রীয় বিএনপির সদস্য ব্যারিস্টার মীর মো. হেলাল উদ্দিন, বিচারপতি ফয়সল মাহমুদ ফয়েজি, দক্ষিণ জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আলী আব্বাস, সদস্য সচিব মোস্তাক আহমদ খান, নগর বিএনপির সহসভাপতি মোহাম্মদ মিয়া ভোলা, নাজিম উদ্দিন আহমদ, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক এসএম সাইফুল আলম, যুগ্ম সম্পাদক ইয়াছিন চৌধুরী লিটন, আবদুল মান্নান, আনোয়ার হোসেন লিপু, শাহেদ বক্স, গাজী মো. সিরাজ উল্লাহ, জেলা বিএনপির ইঞ্জিনিয়ার বেলায়েত হোসেন, মনজুর উদ্দিন চৌধুরী, মুজিবুর রহমান চেয়ারম্যান, মোস্তাফিজুর রহমান, নগর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মো. কামরুল ইসলাম, প্রচার সম্পাদক শিহাব উদ্দিন মুবিন, কোতোয়ালি থানা বিএনপির সভাপতি মঞ্জুর রহমান চৌধুরী ও নগর বিএনপির সহদপ্তর সম্পাদক মো. ইদ্রিস আলী।

জয়নিউজ/কাউছার/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...