খাগড়াছড়িতে নিউমোনিয়ায় ১৫ দিনে ৭ শিশুর মৃত্যু

0

খাগড়াছড়িতে গত কয়েকদিনে বেড়েছে শীতের প্রকোপ। সূর্য উঠার পর দিনে তাপমাত্রা স্বাভাবিক থাকলেও সন্ধ্যা থেকে ভোর রাত পর্যন্ত বাড়ে শীতের প্রকোপ। এ শীতের প্রকোপে বেড়েছে বিভিন্ন  রোগবালাই। এ জেলায় গত কয়েকদিনে সবচেয়ে বেড়েছে নিউমোনিয়া ও ডায়রিয়া আক্রান্তের সংখ্যা। নতুন বছরের প্রথম ১৫ দিনে খাগড়াছড়িতে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ৭ শিশু।

শীতজনিত রোগে সবচেয়ে বেশি বিপাকে পড়ছে দুর্গম এলাকার মানুষেরা। শ্বাসকষ্ট, জ্বর ছাড়াও শিশুরা বেশি আক্রান্ত হচ্ছে নিউমোনিয়া ও ডায়রিয়ায়। যাদের বেশিরভাগের বয়স ৬ থেকে ১৮ মাস।

খগড়াছড়ি সদর হাসপাতালের সিনিয়র নার্স ঈপসিতা ত্রিপুরা জানান, শীত আসার পর থেকে ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়া আক্রান্ত রোগীর সংখ্যাও বাড়ছে। এপর্যন্ত আমরা ১২শ রোগীকে চিকিৎসা দিয়েছি। অনেকসময় বাড়তি রোগীর চাপে বেডে জায়গা হচ্ছে না।

খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালের শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. রাজেন্দ্র ত্রিপুরা বলেন,‘উপজেলা পর্যায়ে শিশুরা বেশি আক্রান্ত হচ্ছে। অনেকে প্রাথমিকভাবে চিকিৎসা না নেওয়ায় জটিলতা বাড়ছে। গত কয়েকদিনে রোগীর চাপও বেশি। বেশীর ভাগই নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত। গত ১৫ দিনে শিশু ওয়ার্ডে ৭ জন শিশু মারা গেছে। এখন সিভিয়ার নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত শিশুদেও স্ক্যানো ইউনিটে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। আতঙ্কিত না হয়ে শিশুর বাড়তি যত্ন নেওয়ার পাশাপাশি নিউমোনিয়া প্রতিরোধে পরার্মশ দেওয়া হচ্ছে অভিবাবকদের।

জয়নিউজ/জাফর/পিডি

 

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...