ছিনতাইকারী কিং সরশকে আটক করলো জনতা

0

পটিয়ার ছিনতাইকারী চক্রের মূল হোতা সরওয়ার ওরফে সরশ প্রকাশ কিং সরশ (২২) নামে এক যুবককে আটক করে স্থানীয় জনতা।

মঙ্গলবার (৪ ফেব্রুয়ারি) ৬টার দিকে দক্ষিণভূর্ষি ইউনিয়নের খানমোহনা এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। আটক সরশ উপজেলার দক্ষিণভূর্ষি ইউনিয়নের মৌলভী রফিক আহমদের বাড়ির ফজল করিমের ছেলে।

জানা গেছে, পটিয়া সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের সার্ভেয়ার রবিন দাশের সহযোগিতায় তাকে আটক করে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এরআগে ১ জানুয়ারি বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রবিন পেশাগত কাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে দুই যুবক তার পথরোধ করে মারধর করে টাকা ও মোবাইল ছিনিয়ে নেয়। ওইদিনই রবিন পটিয়া থানায় বাদী হয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

ভুক্তভোগী সার্ভেয়ার রবিন দাশ জয়নিউজকে বলেন, ১ জানুয়ারি দক্ষিণভূর্ষি ইউনিয়নের রাসেল স্মৃতি পাঠাগার এলাকায় পূর্বে পরিমাপকৃত জায়গা পরিদর্শন করতে যায়। সেখান থেকে বাড়ি ফেরার পথে কেচিয়াপাড়া বিনি ডাক্তারের বাড়ির সামনের রাস্তায় দুই যুবক আমার পথরোধ করে। তারা আমাকে ডিশের তার দিয়ে পেটাতে থাকে। এক পর্যায়ে তারা আমার সঙ্গে থাকা টাকা ও মোবাইল ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। ওইদিন আমি বাদী হয়ে পটিয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করি। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ওই ছিনতাইকারী চক্রের সদস্যকে চিহ্নিত করার পর স্থানীয় বাসিন্দাদের সহযোগিতায় তাকে হাতেনাতে ধরে পুলিশের কাছে দিয়েছি।

পটিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বোরহান উদ্দিন জয়নিউজকে বলেন, ছিনতাইয়ের কবলে পরা ভুক্তভোগী সার্ভেয়ার নিজেই ছিনতাইকারীকে হাতেনাতে ধরে পুলিশের কাছে দিয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে ছিনতাইয়ের ঘটনা স্বীকার করেছে।

ছিনতাইকারী চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে কৌশলে ওই স্থানে ছিনতাই করে আসছিলেন। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান তিনি।

জয়নিউজ/কাউছার/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...