কিম জং উন মারা গেছেন, দাবি হংকং টিভির

0

কিম জং উনের স্বাস্থ্যগত পরামর্শ দিতে গতকাল (শনিবার) উত্তর কোরিয়ায় বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক দল পাঠিয়েছে চীন। এরই মধ্যে বেইজিং ভিত্তিক স্যাটেলাইট টিভি চ্যানেলের ভাইস ডিরেক্টর এবং চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ভাতিজির দাবি, মারা গেছেন কিম।

হংকং স্যাটেলাইট টেলিভিশনের (এইচএকেএসটিভি) ভাইস ডিরেক্টর তার ১৫ মিলিয়ন ফলোয়ারের উদ্দেশ্যে চীনা মেসেজিং অ্যাপ ওয়েইবোতে দাবি করেন, কিমের মৃত্যু হয়েছে। নির্ভরযোগ্য সূত্রে খবরটি জানার কথা বলেছেন তিনি।

ওয়েইবোর পোস্টটি প্রকাশিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস টাইমস এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে।

আরেকটি ছবি ভাইরাল হয়েছে, যেখানে কাঁচের কফিনে মৃত কিমকে দেখা যাচ্ছে। যদিও এর সত্যতা এখনো যাচাই হয়নি।

পরিস্থিতির ওপর নজর রাখলেও কিমের মৃত্যুর খবর নিয়ে কোনো মন্তব্য করেনি ওয়াশিংটন কিংবা ট্রাম্প প্রশাসন।

মাত্রাতিরিক্ত ধূমপান, স্থুলতা ও কাজের চাপের কারণে হৃদরোগের সমস্যায় ভুগছিলেন কিম। এ কারণে হৃদযন্ত্রে অস্ত্রোপচার করা হয়। বেইজিংয়ের এক অসমর্থিত সূত্রে জানা গেছে, অস্ত্রোপচারের সময় সার্জনের হাত কাঁপায় একটি স্টেন্ট ভুলভাবে বসেছে। জাপানি ম্যাগাজিন ‍শুকান গেন্ডাইর দাবি, বোধশক্তিহীন হয়ে আছেন কিম।

জয়নিউজ/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...