সন্ধ্যায় মেয়রের সঙ্গে বসছেন ছাত্রলীগ সভাপতি

0

সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের সঙ্গে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন। মঙ্গলবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা ৭টায় নগর ভবনে মেয়রের কার্যালয়ে এই সাক্ষাতের কথা রয়েছে।

মেয়রের ব্যক্তিগত সহকারী রায়হান ইউসুফ জয়নিউজকে জানান, মেয়র মহোদয়ের সাথে দেখার করার জন্য কেন্দ্রীয় সভাপতি আমাকে ফোন করেন। পরে মেয়র মহোদয়ের সাথে আলাপ করে ছাত্রলীগ সভাপতিকে সন্ধ্যায় তার কার্যালয়ে সাক্ষাতের সময় দেওয়া হয়।

এর আগে সকাল আটটায় চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে -পৌঁছেন কেন্দ্রীয় সভাপতি। সেখানে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা তাকে স্বাগত জানান। এছাড়া চলমান চট্টগ্রাম কলেজ  ও চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার বিষয়টি জানানো হয়।

নগরের বারিকবিল্ডিং মোড়ে আসলে শোভনকে স্বাগত জানান ওয়ার্ড ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। পরে লালখান বাজার এলাকায়ও সভাপতিকে সংবর্ধনা দেন নেতা-কর্মীরা। এ সময় তৃণমূল নেতাকর্মীরা বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন। সেখান থেকে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ সভাপতি প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর কবর জিয়ারত করেন।

এদিকে নগরের ২ নম্বর পলিটেকনিক্যাল মোড়ে সমাবেশ করে ছাত্রলীগ। সেখানে ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন বক্তব্য রাখেন। সেই সমাবেশেও চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগের কমিটি নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেন ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা।

জানা গেছে, সম্প্রতি চট্টগ্রাম কলেজে নবগঠিত কমিটি নিয়ে অসন্তোষ তৈরি হয়। এই নিয়ে দফায় দফায় সংর্ঘষ হয় ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে। এ সময় নগর ছাত্রলীগের বর্তমান কমিটির বৈধতা নিয়েও প্রশ্ন ওঠে। ছাত্রলীগের বড় একটি অংশ চট্টগ্রাম কলেজ কমিটির পাশাপাশি নগর কমিটি নিয়েও প্রশ্ন তোলে। তাদের অভিযোগ, চট্টগ্রাম কলেজে শিবির ও অছাত্রদের নিয়ে কমিটি গঠন করা হয়েছে। পাশাপাশি দুই বছরের জন্য গঠিত নগর ছাত্রলীগের কমিটি পার করছে ছয় বছর।

চট্টগ্রাম কলেজের ঘোষিত কমিটির পদত্যাগ করা সহ-সভাপতি মোস্তাফা কামাল জয়নিউজকে বলেন, মহানগর ছাত্রলীগের কমিটির ২৯১ সদস্যের মধ্যে ২০০ জন বিবাহিত। গত ছয় বছরে তারা গঠন করতে পারেনি কোনো থানা কমিটি। এমনকি ছাত্রলীগের ঘাঁটি হিসাবে পরিচিত সিটি কলেজ, এমইএস কলেজ, ইসলামিয়া কলেজে কোনো সাংগঠনিক পরিচয় দিতে পারেনি নগর ছাত্রলীগ। নির্বাচনের আগে নগর আওয়ামী লীগ ঐক্যবদ্ধ হয়ে যখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন কর্মকাণ্ড চট্টগ্রামের মানুষের মাঝে ছড়িয়ে দেওয়ার সিন্ধান্ত নিয়েছে, ঠিক সেই সময় চট্টগ্রাম কলেজে বিতর্কিত কমিটি দিয়ে আওয়ামী লীগকে অস্বস্তিতে ফেলা হয়েছে। তিনি বলেন, আমরা চট্টগ্রাম কলেজের কমিটি নিয়ে অভিযোগপত্র দিয়েছি কেন্দ্রীয় সভাপতিকে ।-

এর আগে মঙ্গলবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সকালে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন চট্টগ্রাম আসেন। বিমান বন্দর থেকে বারেক বিল্ডিং মোড়, লালখান বাজার ও ২ নম্বর গেট এলাকায় নগর ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ এবং চট্টগ্রাম  বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ ফুল দিয়ে কেন্দ্রীয় সভাপতিকে সংবর্ধনা জানান।

জয়নিউজ

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...