দূর হয়েছে দূরত্ব

চবি যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ

0

বিভাগের নাম যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ। বয়স প্রায় দুই যুগ। পড়ানো হতো দেশ বিদেশী মিডিয়া রিলেটেড থিয়োরিটিক্যাল বই-পুস্তক। বিভাগ থেকে পাশ করে শত শত প্রাক্তনী এখন দেশের অনেক মিডিয়া হাউসে কাজ করছে। তত্ত্বীয় শিক্ষায় এগিয়ে থাকলেও ব্যবহারিক সাংবাদিকতায় কিছুটা পিছিয়ে ছিলো বিভাগটি। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জরী কমিশন- এর হায়ার এডুকেশন কোয়ালিটি এনহ্যান্সমেন্ট প্রজেক্ট (হেকেপ) দুয়ার খুলে দিয়েছে প্রযুক্তিগত সম্ভাবনার। এত দিনে বিভাগের দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান হয়েছে।

বিভাগে প্রতিষ্ঠা হয়েছে মাল্টিমিডিয়া ল্যাব ও মিনি টিভি স্টেশন। আজ মঙ্গলবার ঘটা করে উদ্বোধন হয় এই নতুন প্রতিষ্ঠানের। মঙ্গলবার সকাল ১১টায় ল্যাবটি উদ্বোধন করেন উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী।

উপাচার্য এ সময় বলেন, পঠন-পাঠন থেকে শুরু করে জ্ঞান-গবেষণার নতুন নতুন সম্ভাবনার দ্বার উন্মোচন করতে তথ্য-প্রযুক্তির যথাযথ ব্যবহারের কোন বিকল্প নেই। তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহারে যে জাতি যত বেশি দক্ষ সে জাতি তত বেশি উন্নত।

তিনি আরো বলেন, তথ্য-প্রযুক্তির অবাধ প্রবাহের যুগে ডিজিটাল মাল্টিমিডিয়া ল্যাব আমাদের তরুণ-মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি অনুষঙ্গ। প্রযুক্তির অভাবনীয় উন্নয়নের ফলে গোটা বিশ্ব আজ চলে এসেছে হাতের মুঠোয়। এ ল্যাবের সদ্ব্যবহারের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা নিজেদের জ্ঞান ভান্ডারকে আরও বেশি সমৃদ্ধ করে আলোকিত মানবসম্পদ হিসেবে গড়ে ওঠবে এটাই প্রত্যাশিত।

পরে চবি উপাচার্য স্টুডিও সরঞ্জাম ট্রেনিং কোর্সে অংশগ্রহণকারীদের মাঝে সনদ বিতরণ করেন এবং ফিতা কেটে হেকেপ সিপি-৬০৪৭ এর সহায়তায় নির্মিত যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের নতুন ডিজিটাল মাল্টিমিডিয়া ল্যাব উদ্বোধন করেন।

বিভাগের সভাপতি মো. আবুল কালাম আজাদের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন চবি’র আইসিটি সেলের পরিচালক প্রফেসর ড. মো. হানিফ সিদ্দিকী, সহযোগী অধ্যাপক ও চবি প্রক্টর মোহাম্মদ আলী আজগর চৌধুরী, হেকেপ প্রজেক্টের দায়িত্বরত যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আলী মোহাম্মদ জাকারিয়া খান ও সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ মোরশেদুল ইসলাম। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন হেকেপ কমিটির সদস্য ও বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মাধব চন্দ্র দাশ। এতে বিভাগের অপরাপর শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে দর্শকশ্রোতা হিসেবে ছিলেন বিভাগের শিক্ষার্থীরা।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...