বান্দরবানে লাঠির আঘাতে যুবকের মৃত্যু, আটক ১

0

বান্দরবানে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে মংহ্লা ওয়াই মারমা (২৬) নামে একজনকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। জেলার নাইক্ষ্যংছড়ির সোনাইছড়ি ইউনিয়নের লামারপাড়ায় শুক্রবার সন্ধ্যার পর এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মংহ্লা ওয়াই ওই গ্রামের চসা ওয়াই মারমার ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ইউনিয়নের লামারপাড়া মাঠে স্থানীয় যুবকরা ফুটবল খেলছিল বিকালে। হঠাৎ করে মদ্যপান করে নেশাগ্রস্ত অবস্থায় মাঠে ফুটবল খেলতে চেয়েছিল যুবক মংহ্লা ওয়াই মারমা। তবে একই গ্রামের যুবক চসামং মারমা তাকে খেলায় নিতে অপারগতা প্রকাশ করে। এনিয়ে তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডার পর খেলা শেষে সবাই বাড়িতে ফিরে যান। কিন্তু নেশাগ্রস্ত যুবকটি লাঠি নিয়ে সন্ধ্যায় আবারো খেলতে বাধা দেওয়া যুবকের বাড়িতে গিয়ে ঝগড়ায় জড়িয়ে পড়েন। দুজনের মধ্যে ঝগড়ার একপর্যায়ে নেশাগ্রস্তের হাতের লাঠিটি ছিনিয়ে নিয়ে মাথায় আঘাত করে সাফাই অং মারমা। এতে ঘটনাস্থলেই মাটিতে লুটিয়ে পড়ে নেশাগ্রস্ত যুবক মংহ্লা ওয়াই মারমার মৃত্যু হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ শনিবার (২০ জুন) সকালে গিয়ে নিহত যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে। এ ঘটনায় সাফাই অং মারমাকে (২৫) আটক করেছে পুলিশ। সে লামারপাড়া গ্রামের মংহ্লাছা মারমার ছেলে।

নাইক্ষ্যংছড়ি থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আনোয়ার হোসেন জয়নিউজকে বলেন, মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। লাঠি দিয়ে আঘাত করা যুবককেও আটক করা হয়েছে। নাইক্ষ্যংছড়ি থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।

জয়নিউজ/আলাউদ্দিন/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...