কোথায় গেলে মিলবে জীবন

0

শ্বাসকষ্ট-বুকব্যথা নিয়ে রাউজান থেকে রোববার (৫ জুন) চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন মো. শফি (৬৫)। কিন্তু আশানুরুপ চিকিৎসা না পাওয়ায় রাতেই অবস্থার আরো অবনতি হয়।

তাই সোমবার (৬ জুন) সকাল থেকে নগরের বেসরকারি হাসপাতালগুলোতে খোঁজ শুরু করেন স্বজনরা। অবশেষে এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তির আশ্বাস পেয়ে মুমূর্ষু শফিকে তড়িঘড়ি করে নিয়ে যান স্বজনরা।

শুধু শফিই নয়। করোনা প্রার্দুভাবের পর থেকে নগরে বেসরকারি হাসপাতালগুলো রোগী ভর্তি একরকম বন্ধ করে দেয়। হাসপাতালে ঘুরে ঘুরে চিকিৎসার অভাবে রোগী মারা যাওয়ার ঘটনাও ঘটে। উপায়ন্তর না দেখে চমেক হয়ে উঠে সবার শেষ ভরসা। এতে অত্যধিক রোগী ভর্তির কারণে চিকিৎসা সেবা দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে চিকিৎসক-স্বাস্থ্যকর্মীদের।

তবে বর্তমানে অনেক বেসরকারি হাসপাতালে রোগী ভর্তি নেওয়া শুরু করেছে। এতে করে যারা অন্য রোগের কারণে চিকিৎসা নিতে আসছিলেন চমেকে তারা আবার বেসরকারি হাসপাতালমুখী হচ্ছেন। যদিও বেসরকারি হাসপাতালে রয়েছে খরচের হাত। কিন্তু প্রিয়জনকে বাঁচাতে চেষ্টার কোনো ত্রুটি করছেন না স্বজনরা।

সোমবার সকালে চমেক এলাকা থেকে ছবিগুলো তোলা।

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...