ভ্যানগাড়িতে দোকান কর্মচারীর লাশ, আটক ১

0

বোয়ালখালীর আরকান সড়কের আপেল আহমদ টেক এলাকা থেকে ভ্যানগাড়িতে রাখা মো. মোশারফ(১৬) নামে এক দোকান কর্মচারীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এঘটনায় একজনকে আটক করা হয়।

শনিবার (১৮ জুলাই) সকালে স্থানীয়দের কাছে থেকে খবর পেয়ে পুলিশ এ লাশ উদ্ধার করে।

নিহত মোশারফ কক্সবাজারের চকরিয়ার ঘোনাপাড়া এলাকার ২নং ওয়ার্ডের মো.বশির আলমের ছেলে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, নিহতের শরীরে পচন ধরে বিকৃত হয়ে গেছে। বোয়ালখালী উপজেলা সদরের তুলাতল এলাকায় একটি ফার্নিচারের দোকানে কাজ করতো মোশারফ। সে দোকান মালিকের ভাড়া বাসায় থাকতো।
তবে সে গত মঙ্গলবার (১৪ জুলাই) পাঁচদিন ধরে নিখোঁজ ছিল বলে দাবি করেছেন শাহ আমানত ফার্নিচার দোকানের মালিক জামাল উদ্দিন।

তিনি জয়নিউজকে বলেন, গত মঙ্গলবার দুপুরে মেস থেকে অন্যান্য কর্মচারীদের জন্য ভাত নিয়ে এসে দোকান থেকে বেরিয়ে যায়। পরে তাকে মোবাইল করলে সে তার মামাতো ভাই জমিরের পূর্ব কালুরঘাটের বাসায় গিয়েছে বলে জানিয়েছিল।

এরপর থেকে তার খোঁজ মেলেনি। পরে কে বা কারা তার বড় ভাইয়ের কাছে ফোনে ৫০ হাজার টাকা দাবি করে। এ বিষয়ে বোয়ালখালী থানায় নিখোঁজ ডায়েরি করতে গিয়েও নানান জটিলতায় করতে পারেননি বলে জানা গেছে।

এদিকে ৫০ হাজার টাকা দাবি করা দুর্বৃত্তদের ১০হাজার টাকা দিলেও শেষ রক্ষা হয়নি বলে জানিয়েছেন নিহতের পরিবার।

স্থানীয়রা জানান, শনিবার ভোরে আরকান সড়কের আপেল আহমদ টেকের একটি ভ্যানগাড়িতে দুর্বৃত্তরা লাশ নিয়ে আসলেও লোকজন দেখে গাড়িসহ লাশ ফেলে পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ তা উদ্ধার করে নিয়ে গেছে।

বোয়ালখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবদুল করিম জয়নিউজকে বলেন, নিহতের লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল প্রতিবেদন শেষে মর্গে পাঠানো হচ্ছে। লাশে পচন ধরে গেছে। এ ঘটনায় নিহতের মামাতো ভাই জমিরকে আটক করা হয়েছে। তদন্ত চলছে বলে তিনি জানান।

জয়নিউজ/মাসুদ/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...