সোমালিয়ায় হোটেলে জঙ্গি হামলা, নিহত ১৭

0

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুর একটি বিলাসবহুল হোটেলে জঙ্গি হামলায় ১৭ জন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো ২৮ জন।

রোববার (১৬ আগস্ট) রাতে লিডো সমুদ্র সৈকত সংলগ্ন এলিট হোটেলে এ ঘটনা ঘটে।

সরকারের মুখপাত্র ইসমায়েল মুখতার মার্কিন বার্তা সংস্থা এপিকে নিশ্চিত করেছেন নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে গোলাগুলিতে চার জঙ্গির সবাই নিহত হয়েছে।

তিনি জানান, সৈকত সংলগ্ন এলিট হোটেলে আল শাবাবের জঙ্গি ও নিরাপত্তা বাহিনীর মধ্যে প্রায় তিন ঘণ্টা বন্দুকযুদ্ধ চলে। নিহতদের মধ্যে দুজন সরকারি চাকরিজীবী, তিনজন হোটেল নিরাপত্তারক্ষী, চার বেসামরিককে শনাক্ত করার কথা জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। তবে বাকিদের পরিচয় এখনো জানা যায়নি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার একটি আত্মঘাতী গাড়ি বোমা হামলা দিয়ে শুরু হয় এই নৃশংস হত্যাকাণ্ড। এদিন বিকালের শক্তিশালী গাড়ি বোমা বিস্ফোরণে উড়ে যায় হোটেলের নিরাপত্তা গেট। তারপর দৌড়ে বন্দুকধারীরা হোটেলে ঢুকে জিম্মি করে অতিথিদের, বেশির ভাগই তখন ছিলেন খাবার রুমে। হামলা শুরুর পরপরই অ্যাম্বুলেন্সের সাইরেন শোনা যায় এবং সামরিক যান অবস্থান নেয় হোটেলের সামনে।

চার ঘণ্টা পর সরকারের মুখপাত্র ইসমায়েল মুখতার এক টুইটে জানান, সব বন্দুকধারীকে হত্যা করে হোটেলটি অবরোধমুক্ত করা হয়েছে।

এদিন মধ্যরাতে দেশটির রাষ্ট্রায়ত্ত বার্তা সংস্থা এসওএনএনএ জানায়, অভিযান শেষে হয়েছে এবং হোটেলটি থেকে ২০৫ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে।

এদের মধ্যে ‘কয়েকজন মন্ত্রী, আইনপ্রণেতা ও বেসামরিক ব্যক্তি’ রয়েছেন বলে হোটেলে অবস্থানরত নিরাপত্তা কর্মকর্তা ফারহান কারোলের উদ্ধৃতি দিয়ে জানিয়েছে তারা।

এদিকে সোমালিয়ার বিদ্রোহী গোষ্ঠী আল শাবাব হামলার দায় স্বীকার করেছে বলে দাবি করেছে সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপ।

জয়নিউজ/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...