বিপ্লব উদ্যানের কার্যক্রম বন্ধ রাখার নির্দেশ দিলেন চসিক প্রশাসক

0

চুক্তি ভঙ্গ করায় নগরের বিপ্লব উদ্যানের সৌন্দর্যবর্ধন কার্যক্রম বন্ধ রাখার নির্দেশ দিলেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন।

মঙ্গলবার (২৫ আগস্ট) দুপুরে নগরের ২ নম্বর গেট বিপ্লব উদ্যানের সৌন্দর্যবর্ধন কার্যক্রম পরিদর্শন ও গণশুনানীকালে প্রশাসক এ নির্দেশনা দেন।

প্রশাসক সুজন বলেন, চুক্তিতে ১৫০বর্গফুটের দোকান করার কথা থাকলেও প্রতিটি দোকান ২শ বর্গফুটে বর্ধিত করা হয়েছে। জনসাধারণের চলাচলের রাস্তা সংকুচিত করে দোকানের সিট বসানো হয়েছে। এছাড়াও চুক্তির শর্ত লঙ্ঘন করে দ্বিতল ভবন নির্মাণ করে দোকান বসানো হয়েছে-যা চসিকের সাথে সম্পূর্ণরূপে চুক্তির বরখেলাপ করা হয়।

অনিয়ম ও অসঙ্গতি দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করে প্রশাসক বলেন, চসিকের চুক্তির বাইরে গিয়ে কিংবা ব্যক্তি স্বার্থ চরিতার্থ করে শুধুমাত্র বাণিজ্যিক চিন্তা ভাবনায় এ কাজ করতে দেওয়া যায় না।

এ বিষয়ে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের প্রকৌশলী ও চসিকের সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীরা চুক্তি অনুযায়ী কাজ সম্পাদনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন। উভয় পক্ষ যতক্ষণ সিদ্ধান্তে উপণীত হতে না পারবেন ততদিন এই অবৈধ দোকান বন্ধ থাকবে। অন্যথায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

উল্লেখ্য রিফর্ম লি. ও স্টাইল লিভিং আর্কিটেক্ট এর স্বত্বাধিকারী মো. মিজানুর রহমান বিপ্লব উদ্যান সৌন্দর্যবর্ধন কাজের ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান হিসেব কাজ করছেন।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামসুদ্দোহা, সচিব আবু শাহেদ চৌধুরী, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা মো. মুফিদুল আলম, প্রকৌশলী আলী আশরাফ, প্রকৌশলী প্রবীর কুমার সেন, প্রশাসকের একান্ত সচিব মো. আবুল হাশেম, প্রধান নগর পরিকল্পনাবিদ স্থপতি একেএম রেজাউল করিম, প্রধান পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তা শেখ শফিকুল মান্নান সিদ্দিকী, উপপ্রধান পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তা মোরশেদ আলম চৌধুরী ও নির্বাহী প্রকৌশলী আবু সিদ্দিক।

জয়নিউজ/কাউছার/বিআর
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...