চট্টগ্রামে বেড়েছে করোনা রোগী

0

চট্টগ্রামে গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন আরো ৯০ জন। যা গত ৭ দিনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি।

এক সপ্তাহের চট্টগ্রামে করোনা আক্রন্তের হার পর্যালোচলা করে দেখা গেছে চট্টগ্রামের ৭টি ও কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ ল্যাবে নমুনা পরীক্ষা হার বাড়লেই বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা।

এর আগে গত বুধবার ৬১২টি নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে করোনা পজেটিভ হযেছেন ৫৪ জন। এর আগেরদিন অর্থাৎ মঙ্গলবার ৭০৭টি নমুনার বিপরীতে করোনা রোগী শনাক্ত হয় ৬৬ জন।

এর ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবারের নমুনা পরীক্ষা হয় ১ হাজার ৮৫টি। যার বিপরীতে সর্বোচ্চ ৯০ জন্ আক্রান্ত হয়েছে। যা নমুনা পরীক্ষার সাড়ে ৮ শতাংশ। এনিয়ে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১৮ হাজার ৯৪৯ জন।

তবে চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লেও মৃত্যুহার কম। গত দুইদিন মৃত্যুহীন থাকলেও গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন একজন।

মূলত চট্টগ্রামে সাম্প্রতিক সময়ে স্বাস্থ্যবিধি মানছেন কেউ। সামাজিক দূরত্ব মেনে চলা তো দূরে থাক মুখে মাস্ক ব্যবহারও নিয়মিত করছেন না। এতে প্রতিদিনই করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি বেড়ে যাচ্ছে বহুগুণে।

বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) কক্সবাজার মেডিক কলেজ ল্যাবসহ চট্টগ্রামে ৮টি ল্যাবে নমুনা পরীক্ষা হয়।

এরমধ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ল্যাবে ৫৯টি নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ১৫ জন। বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেস (বিআইটিআইডি)-এ ৪১৬টি নমুনায় শনাক্ত হয় ২০ জন।

চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাবে ৫৬টি নমুনায় ৪ জন এবং চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) ল্যাবে ৩৮৬টি নমুনায় ৩১ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস পাওয়া যায়।

এছাড়া বেসরকারি ইম্পেরিয়াল হাসপাতাল ল্যাবে ৩৬টি নমুনায় ৪ জন, শেভরণে ৫৯টি নমুনা পরীক্ষা করে ১১ জন এবং চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল ল্যাবে ১০টি নমুনা পরীক্ষা করে ২ জন করোনা আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন।

নতুন চালু হওয়া জেনারেল হাসপাতালের রিজিওনাল টিবি র‌্যাফায়েল ল্যাবরেটরিতে (আরটিআরএল) ৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে ২ জন করোনা রোগী শনাক্ত হন।

এদিকে কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ ল্যাবে চট্টগ্রামের ৫৫টি নমুনা পরীক্ষা করে একজনের শরীরে করোনা ভাইরাস পাওয়া গেছে।

চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি জানান, গত ২৪ ঘণ্টার নমুনা পরীক্ষায় ৯০ জন নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে নগরে ৮০ জন এবং উপজেলায় ১০ জন। করোনা প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার উপর জোর দেন তিনি।

জয়নিউজ/হিমেল/পিডি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...