সিসিটিভি ফুটেজে ধর্ষক শনাক্ত, গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ

0

বান্দরবানে ধর্ষককে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছে স্থানীয় জনতা। সিসিটিভি ফুটেজ থেকে চিহ্নিত করে সোমবার (৫ অক্টোবর) রাতে ওই ধর্ষককে আটক করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, গত ২৭ সেপ্টেম্বর বান্দরবান সদরে ঘুরে বেড়ানো এক মানসিক প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণ করে জামাল হোসেন (২৫)। তার বাড়ি পটুয়াখালীর দশমিনায়। তবে দীর্ঘদিন ধরে সে বান্দরবান পৌরসভার ওয়াপদা ব্রিজ এলাকায় বসবাস করছে।

এদিকে ধর্ষণের পর ওই প্রতিবন্ধী নারী অন্তঃস্বত্তা হয়ে পড়লে ঘটনাটি জানাজানি হয়। বিষয়টি জানতে পেরে পুলিশ শহরের বিভিন্ন সিসি ক্যামেরার ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করে ধর্ষকের চেহারা শনাক্ত করতে সক্ষম হয়।

স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী রাজেশ দাস বলেন, ধর্ষিতা প্রতিবন্ধী নারী গত কয়েকদিন আগে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়। চিকিৎসকরা প্রতিবন্ধী নারী অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেন। পরে ঘটনাটি জানাজানি হলে জেলাজুড়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। উদ্যোগ নেওয়া হয় ধর্ষিতা নারীর চিকিৎসাসহ সার্বিক সহায়তার।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহীদুল ইসলাম চৌধুরী জানান, বাজারের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে স্থাপিত সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে স্থানীয়রা অভিযুক্ত জামাল হোসেনকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে দিয়েছে। ধর্ষক জামাল হোসেনের বিরুদ্ধে সদর থানার উপ-পরিদর্শক মো. জসিম বাদী হয়ে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে।

জয়নিউজ/আলাউদ্দিন

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...