ট্রাম্প-বাইডেন: চার রাজ্যে কে এগিয়ে, কে পিছিয়ে?

0

সারা পৃথিবীর চোখ এখন শুধু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনের ফলাফলের দিকে। কে হচ্ছেন বিশ্বে সবচেয়ে শক্তিধর রাষ্ট্রের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট, তাই জানতে উদগ্রীব সবাই। তবে এবারের নির্বাচনে ভোট গণনায় যথেষ্ট দেরি হচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, প্যানডেমিকের কারণে এ বছর ভোট গণনায় প্রচুর সময় লাগছে। বিপুল পরিমাণ পোস্টাল ভোটও একটি কারণ। এখনো বেশ কয়েকটি রাজ্যের ভোট গণনা চলছে।

জর্জিয়া, পেনসিলভানিয়া, অ্যারিজোনা, নেভাদায় এখনো ভোট গণনা চলছে। এই রাজ্যগুলির ফল প্রকাশিত হলে বোঝা যাবে পরবর্তী প্রেসিডেন্ট কে হবেন।

এক নজরে চার রাজ্যের সর্বশেষ

জর্জিয়া

জর্জিয়ায় এখনো পর্যন্ত এগিয়ে আছেন ট্রাম্প। কিন্তু বাইডেন ক্রমশ মার্জিন কমাচ্ছেন। এই মুহূর্তে দুই জনের ভোটের তফাত মাত্র সাড়ে তিন হাজার। শতাংশের হিসেবে শূন্য দশমিক এক। এখনো ১৯ হাজার ভোট গণনা বাকি। যার অধিকাংশই পোস্টাল ব্যালট। আটলান্টা সহ বেশ কিছু অঞ্চল থেকে এই পোস্টাল ব্যালট এসেছে। সমীক্ষা বলছে, এই অধিকাংশ ভোটই বাইডেনের দিকে যাবে। সে ক্ষেত্রে ট্রাম্পের হাত থেকে জর্জিয়া ছিনিয়ে নিতে পারেন বাইডেন। পেয়ে যেতেন পারেন ১৬টি ইলকটোরাল ভোট।

পেনসিলভানিয়া

পেনসিলভানিয়ায় ট্রাম্প ৬৪ হাজার ভোটে এগিয়ে আছেন। তবে এখনো ভোট গণনা শেষ হয়নি। ভোটকেন্দ্রের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, দিনের শেষে ফলাফল জানানোর চেষ্টা করবেন তাঁরা। পেনসিলভানিয়ায় বিপুল ভোটে এগিয়ে ছিলেন ট্রাম্প। কিন্তু পোস্টাল ব্যালটের গণনা শুরু হতেই বাইডেন দ্রুত ভোট পেতে শুরু করেন। তবে এখনো পর্যন্ত পেনসিলভানিয়ার যা হিসেব, তাতে ট্রাম্পেরই জয়ের সম্ভাবনা বেশি। পেনসিলভানিয়া যিনি জিতবেন তাঁর পকেটে যাবে ২০টি ইলেকটোরাল ভোট।

অ্যারিজোনা

১১টি ইলেকটোরাল ভোট আছে অ্যারিজোনায়। বাইডেন এখানে এগিয়ে আছেন ৬৮ হাজার ভোটে। এখনো চার লাখ ৭০ হাজার ভোট গণনা বাকি। এই ভোটের অধিকাংশই পোস্টাল ব্যালট এবং দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে এসেছে। অ্য়ারিজোনায় বিপুল লিড ছিল বাইডেনের। কিন্তু পোস্টাল ব্যালটের গণনা শুরু হওয়ার পরে মার্জিন কমিয়েছেন ট্রাম্প।

নেভাডা

নেভাডায় এখনো গণনা চলছে। এখানে ১২ হাজার ভোটে এগিয়ে আছেন বাইডেন। ৬৩ হাজার হাজার ব্যালট গণনা এখনো বাকি। তবে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন আরো ৫১ হাজার ব্যালট ঢোকার কথা শুক্রবার। নেভাডায় বাইডেনের জেতার যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে। কারণ পোস্টাল ব্যালটের ভোট তাঁর দিকেই যাচ্ছে।

তবে ফলাফল ঘোষণার পর যদি ডোনাল্ড ট্রাম্প যদি সুপ্রিম কোর্টে চলে যান এবং আদালত যদি মামলা গ্রহণ করে নেয়, তা হলে চূড়ান্ত ফলাফল এখনই ঘোষণা করা সম্ভব হবে না।

সূত্র: ডয়েচে ভেলে

জয়নিউজ/পিডি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...