রামগঞ্জে টয়লেট ভাংচুরের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ৪

পৌর মেয়রের প্রতিবাদ সভা

0

রামগঞ্জ পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নির্মাণাধীন টয়লেট ভাংচুর করার অভিযোগে রামগঞ্জ পৌরসভার ৪ কর্মচারীকে গ্রেফতার করেছে রামগঞ্জ থানা পুলিশ। মঙ্গলবার (২ অক্টোবর) গভীর রাতে উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। এর আগে রামগঞ্জ পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মঞ্জুরুল হক ফারুক বাদী হয়ে রামগঞ্জ থানায় ৭ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন রামগঞ্জ পৌরসভার পানি শাখার বিল ক্লার্ক আবদুল মান্নান, স্বাস্থ্য সহকারী ফারুক হোসেন, কার্য সহকারী জহিরুল ইসলাম ও টিকাদানকারী ফরহাদ হোসেন।

এদিকে রামগঞ্জ পৌরসভার কাউন্সিলর মোঃ শাহাজাহানের সভাপতিত্বে পৌরসভা অফিস প্রাঙ্গনে এক প্রতিবাদ সভার আয়োজন করে পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারী পরিষদ।

রামগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খোন্দকার মোঃ রিজাউল করীম জানান, সৃষ্ট ঘটনায় বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির পক্ষ থেকে একটি স্মারকলিপি দেয়া হয়েছে। আমি বিষয়টি নিয়ে রাতে মেয়র ও শিক্ষকদের সাথে বসে সমাধানের চেষ্টা করবো। আশা করি ভালো একটা সমাধান হবে।

রামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ তোতা মিয়া জানান, মঙ্গলবার রাতে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মঞ্জুরুল হক ফারুক বাদী হয়ে ৭ জনকে আসামি করে ভাংচুর, মালামাল লুট ও শিক্ষার্থীদের গালাগাল করার অভিযোগ এনে একটি মামলা দায়ের করেন। এর আলোকে ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ৪ জনকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

 

জয়নিউজ/জুলফিকার

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...