ইনিংস ঘোষণা করে কঠিন লক্ষ্য দিল বাংলাদেশ

0

মেহেদী হাসান মিরাজের আউটের সঙ্গে সঙ্গে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করল বাংলাদেশ। ততক্ষণে স্কোরে জমা হয়েছে ৮ উইকেটে ২২৩ রান। এতে চট্টগ্রাম টেস্ট জিততে ৩৯৫ রানের লক্ষ্য দাঁড়ায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের সামনে।

বিশাল লক্ষ্যে পৌঁছাতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের হাতে আছে দেড় দিনের মতো। বাংলাদেশ ইনিংস ঘোষণার সঙ্গে ৩৯৪ রানের লিডকে যথার্থ মনে করেছে। ব্যাটসম্যানদের পর এখন স্বাগতিক বোলারদের প্রমাণের পালা।

শনিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) দিনের শুরুতে মুশফিকুর রহিমকে হারিয়ে চাপ তৈরি হলেও মুমিনুল ও লিটন দাসের চমৎকার ব্যাটিংয়ে সেই ধাক্কা কাটিয়ে বড় লিডের পথ তৈরি হয়। বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে পেয়েছেন টেস্ট ক্যারিয়ারের দশম সেঞ্চুরি। আর লিটন পান লাল বলের ক্রিকেটের ষষ্ঠ হাফসেঞ্চুরি।

তৃতীয় দিন শেষে তাইজুল ইসলাম বলেছিলেন, লিড ২৫০ হলেই যথেষ্ট। তবে অধিনায়ক মুমিনুলের দৃষ্টি ছিল বহুদূর। জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম মানেই যেন তার ব্যাটে রানের ফোয়ারা! চট্টগ্রামের পয়মন্ত ভেন্যুতে আজ দশম সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক। এই সেঞ্চুরিতে মুমিনুল ছাড়িয়ে গেছেন তামিম ইকবালকে। টেস্টে এতদিন সবচেয়ে বেশি ৯ সেঞ্চুরির মালিক ছিলেন তামিম।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম ইনিংসে ব্যর্থ হলেও দ্বিতীয় ইনিংসে ঘুরে দাঁড়িয়েছে মুমিনুলের ব্যাট। তাকে যোগ্য সঙ্গ দেওয়া লিটন দাসও পেয়েছেন ফিফটি। যদিও ৬৯ রানে ফিরেছেন এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান। লিটনের বিদায়ের কিছুক্ষণ পর আউট হয়ে গেছেন মুমিনুলও। শ্যানন গ্যাব্রিয়েলের বলে কেমার রোচের হাতে ধরা পড়ার আগে খেলেছেন ১১৫ রানের ঝলমলে ইনিংস। ১৮২ বলের ইনিংসটি তিনি সাজান ১০ বাউন্ডারিতে।

তার বিদায়ের পর বাংলাদেশ দ্রুত হারায় তাইজুল ইসলাম (৩) ও মিরাজের (৭) উইকেট। মিরাজের আউটের পরই ইনিংস ঘোষণা করে স্বাগতিকরা। এ সময় ১ রানে অপরাজিত ছিলেন নাঈম হাসান।

এর আগে চতুর্থ দিন শুরু করেছিলেন মুশফিক-মুমিনুল। মুশফিক অবশ্য বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। টিভি পর্দায় দেখা গেল রিভিউ নেওয়ার সময় শেষ হয়ে গেছে। ধারাভাষ্যে থাকা ইয়ান বিশপও বারবার বললেন ‘টাইম আপ, টাইম আপ’। তবে মুশফিকের রিভিউ সংকেত আমলে নিলেন আম্পায়াররা। তাতেও অবশ্য বাঁচতে পারেননি এই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান! রাকিম কর্নওয়ালের বলে এলবিডাব্লিউ হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরেন মুশফিক।

সফরকারীদের সবচেয়ে সফল বোলার রাকিম কর্নওয়াল ও জোমেল ওয়ারিকান। দুজনই নিয়েছেন ৩টি করে উইকেট। আর ২ উইকেট পেয়েছেন শ্যানন গ্যাব্রিয়েল।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে স্বাগতিকরা চতুর্থ দিন শুরু করেছিল ৩ উইকেটে ৪৭ রান নিয়ে। প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ করেছিল ৪৩০ রান। আর ওয়েস্ট ইন্ডিজ অলআউট হয়েছিল ২৫৯ রানে।

জয়নিউজ/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...