পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ, আটক ১৫

0

নগরের কাজীর দেউড়িতে বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। এতে তিনজন গুলিবিদ্ধ হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পরে অভিযান চালিয়ে মহানগর মহিলা দলের সভানেত্রী মনোয়ারা বেগম মণিসহ বিএনপির ১৫ নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

সোমবার (২৯ মার্চ) বিকেল সাড়ে ৩টায় এই ঘটনা ঘটে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিএমপির কোতোয়ালী জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার নোবেল চাকমা।

বিএনপির নেতাকর্মীরা জানিয়েছেন, আজ কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে নসিমন ভবন চত্ত্বরে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিলের আয়োজন করে নগর বিএনপি। এতে নগরের বিভিন্ন এলাকা থেকে নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে সমাবেশে আসার পথে পুলিশ বাঁধা দিলে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

মহানগর বিএনপির সাবেক দপ্তর সম্পাদক ইদ্রিস আলী বলেন, আমাদের শান্তিপূর্ণ মিছিলে বিনা উস্কানিতে নেতাকর্মীদের ওপর পুলিশ অতর্কিতভাবে লাঠিচার্জ করে। এতে বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদলের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই শীলব্রত বড়ুয়া বলেন, ‘কাজীর দেউড়ি এলাকায় সংঘর্ষের ঘটনায় ৩ জনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তারা হলেন— আনিসুর রহমান (৬০), মোহাম্মদ হায়দার (২৬) ও প্রিয়াংকা চৌধুরী। তবে এদের মধ্যে প্রিয়াংকা নারী পুলিশ সদস্য বলে জানা গেছে।’

সিএমপির কোতোয়ালী জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার নোবেল চাকমা বলেন, বিএনপির সমাবেশ চলাকালে নেতাকর্মীরা হঠাৎ পুলিশের ওপর ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। পরে আমরা তাদের লাঠিচার্জ করি। এতে আমাদের ৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আমরা ১৫ জনকে আটক করেছি।

জয়নিউজ/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...