নেইমারের নৈপুণ্যে পেরুকে হারিয়ে ফাইনালে ব্রাজিল

0

পেরুকে হারিয়ে কোপা আমেরিকার ফাইনালে উঠেছে ব্রাজিল। সেমিফাইনালে ১-০ গোলে জিতে টানা দ্বিতীয়বার শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে জায়গা করে নিল তিতের শিষ্যরা। দলের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন লুকাস পাকুয়েতা।

মঙ্গলবার (৬ জুলাই) বাংলাদেশ সময় ভোরে রিও দে জেনেইরোর নিল্তন সান্তোস স্টেডিয়ামে শেষ চারের ম্যাচে মুখোমুখি হয় ব্রাজিল ও পেরু।

১৩তম মিনিটে সুযোগ আসে দলটির সামনে। কাসেমিরোর ঝড়ো ফ্রি-কিক গোলরক্ষক কোনোমতে ফিরিয়ে দিলেও হাতে জমাতে পারেননি। অবশ্য ফিরতি শটে গোল আদায় করে নিতে পারেননি এভারটন।
ম্যাচের ১৯তম মিনিটে দুবার ভালো সুযোগ আসে ব্রাজিলের। কিন্তু পেরু গোলরক্ষকের সুবাদে বেঁচে যায় দলটি। প্রথমে কাসেমিরোর দূরপাল্লার শট ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে দেন গায়েসে। পরেই পাকুয়েতার বাড়ানো বলে নেইমারের শট ঝাঁপিয়ে ঠেকানোর পর রিশার্লিসনের ফিরতি শটও রুখে দেন এই গোলরক্ষক।

অবশেষে ৩৫তম মিনিটে ব্রাজিলকে আর রুখেত পারেননি গায়েসে। মাঝ মাঠ থেকে বল পেয়ে দারুণ দক্ষতায় ডি-বক্সে ঢুকে যান নেইমার। সেখান থেকে অসাধারণ তিন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে অরক্ষিত পাকুয়েতাকে পাস দেন তিনি। পরে এক শটে অনায়াসেই গোলটি অলিম্পিক লিওঁর এই মিডফিল্ডার।

বিরতির পর ম্যাচে ফেরার আপ্রান চেষ্টা করে পেরু। ৫০তম মিনিটে নিজেদের অর্ধ থেকে ইয়োশিমার ইয়োতুনের বাড়ানো বল ধরে ডি বক্স থেকে শট নেন জানলুকা লাপাদুলা। ঝাঁপিয়ে কোনোমতে ফেরান এদেরসন। ফিরতি বল ক্লিয়ার করেন ব্রাজিলের এক খেলোয়াড়। পরে ৬১তম মিনিটে দূরপাল্লার শটে এদেরসনের পরীক্ষা নেন রাসিয়েল গার্সিয়া। ঝাঁপিয়ে পড়ে এবারও জাল অক্ষত রাখেন ম্যানচেস্টার সিটি গোলরক্ষক।

ম্যাচের ৮১তম মিনিটে ফের গোল বঞ্চিত হয় পেরু। ইয়োতুনের ফ্রি কিক থেকে আলেকসান্দার কায়েন্সের হেড অল্পের জন্য লক্ষ্যে থাকেনি। ফলে ১-০ গোলের জয়েই ফাইনাল নিশ্চিত করে ব্রাজিল।

আগামী ১১ আর্জেন্টিনা ও কলম্বিয়ার মধ্যে বিজয়ীর সঙ্গে জুলাই ফাইনালে খেলবে নেইমাররা।

জয়নিউজ/পিডি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...