দাম বেশি তবে কালেকশন ভালো সানমারে

0

জমজমাট ঈদ কেনাবেচা চলছে সানমার ওসান সিটির লাইফ স্টাইল, ইয়েস টু, মাস্টার ফ্যাশন, ওমেন্স ওয়াল্ড, ফ্রেন্ডস সু, সিয়াম ফ্যাশন এন্ড কসমেটিকস, এফএম ফ্যাশনসহ বিভিন্ন দোকানে।

জেন্টল পার্কের বিক্রয়কর্মী হাসান আলম জয়নিউজকে বলেন, আমাদের দোকানে পাঞ্জাবি, ফতুয়া, কুর্তি, মেয়েদের টপস ও জিন্স রয়েছে। বিক্রি ভালোই হচ্ছে। তবে ২৫ রমজানের পর বিক্রি আরো বাড়বে।

তিনি আরো জানান, এখানে পাঞ্জাবির সর্বনিম্ন দাম ১ হাজার ৫০০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ৫ হাজার টাকা পর্যন্ত। মেয়েদের টপস সর্বনিম্ন ১ হাজার ২০০ টাকা থেকে ৪ হাজার টাকা পর্যন্ত।

শপিংয়ে আসা সাজ্জাত উল্লাহ নামের এক শিক্ষার্থী জয়নিউজকে বলেন, পাঞ্জবি কিনতে এলাম। কালেকশন অনেক ভালো, তবে দামটা একটু বেশি। জুতা কিনলাম। এখানে জুতার কালেকশন অন্য শপিংমলগুলো থেকে অনেক অনেক ভালো।

সানমারে বাটার দোকানে এসেছে নতুন সব কালেকশন। বাটা শোরুমের বিক্রয়কর্মী হায়দার আলম জয়নিউজকে বলেন, এবার বাটার অনেক কালেকশন এসেছে এখানে। ছোট থেকে শুরু করে সববয়সী মানুষের জন্য। আমাদের এখানে সু, পাম ‍সু, লেডিস সু, স্নোকার, সেন্ডেল- সব আছে । সব ধরনের জুতা ভালোই বিক্রি হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, ক্রেতাদের পছন্দটাকে গুরুত্ব দিয়ে আমাদের কালেকশন। ক্রেতার সন্তুষ্টি আমাদের লক্ষ্য।

বৈশাখী স্টোরের বিক্রেতা জয়নিউজকে বলেন, আমাদের এখানে থান কাপড়, রেডিমেড জামা, শাড়ি ও বোরকা পাওয়া যায়। ক্রেতারা তাদের পছন্দ এবং সাধ্যানুযায়ী কাপড় কিনছে। এখানে বিভিন্ন দাম এবং কোয়ালিটির পণ্য রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, এখানে থান কাপড়ের সর্বনিম্ন দাম ১ হাজার ৮০০ টাকা থেকে ৮ হাজার টাকা পর্যন্ত।

ব্লু মুনের বিক্রেতা হাবিব হাসান জয়নিউজকে বলেন, যতটুকু আশা করেছি এখনো ততটুকু বিক্রি হয়নি। আশা করছি, সামনে বিক্রি বাড়বে।

তিনি বলেন, আমাদের দোকান মূলত পাঞ্জাবির। তবে ঈদ উপলক্ষে পাঞ্জবির পাশাপাশি পায়জামা, শার্ট, জিন্সের প্যান্ট আনা হয়েছে।

আয়েশা চৌধুরী নামের এক কলেজছাত্রী জয়নিউজকে বলেন, আমি জামা আর টপস কিনেছি। সানমারের কিছু দোকানে দামটা একটু বেশি। তবে এদের কালেকশনটা ভালো।

প্লাস পয়েন্টের স্বত্বাধিকারী নজরুল আলম জয়নিউজকে বলেন, ইফতারের পর ক্রেতাদের প্রচুর ভিড় হয়। তখন ভালো বিক্রি হয়। আমাদের দোকানে বিভিন্ন ধরনের নতুন নতুন কালেকশন রয়েছে। দেশি এবং বিদেশি কাপড় আমাদের দোকানে আছে। ভারতীয় কুর্তি এখানকার অন্য কোনো দোকানে নেই, আমরা এটি বিক্রি করছি ২ হাজার টাকায়।

জয়নিউজ/আরসি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...