শ্বশুরবাড়িতে জামাতার ঝুলন্ত লাশ, হত্যা না আত্মহত্যা?

0

রাউজানে তারেক (১৯) নামে এক যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের অভিযোগ, তাকে শ্বশুরবাড়িতে পিটিয়ে হত্যা করা হয়।

শুক্রবার (২ আগস্ট) সন্ধ্যা ৭টায় পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের আইলী খীল খামার টিলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত তারেক রাঙামাটির কাউখালীর বেতবুনিয়া ইউনিয়নের গোদারপাড় এলাকার সেকান্দর ফকিরের বাড়ির আবদুর রহমানের ছেলে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, তারেক ও তার স্ত্রী শিল্পী আক্তারের মধ্যে বেশ কিছুদিন ধরে দাম্পত্য কলহ চলছিল। বিষয়টির সুরাহা করতে খামার টিলা এলাকার মৃত মো. ফোরকানের বাড়িতে শুক্রবার বৈঠকের তারিখ নির্ধারিত হয়।

এদিন তারেক তার পরিবারের আরো কয়েকজন সদস্যকে নিয়ে তার শ্বশুরবাড়িতে যান। বৈঠক শুরু হওয়ার আগে তারেক ঘুমানোর কথা বলে শ্বশুরবাড়ির একটি কক্ষে ঢুকে দরজা বন্ধ করে দেন। কিছুক্ষণ পর তারেককে শ্বশুরবাড়ির লোকজন অনেক ডাকাডাকি করেও সাড়া না পেয়ে দরজা ভেঙে ভেতরে ঢোকেন।

এসময় তারা সেখানে তারেকের ঝুলন্ত লাশ দেখতে পান। পরে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়।

এদিকে শ্বশুরবাড়ির লোকজন তারেক আত্মহত্যা করেছেন বলে দাবি করলেও নিহতের পরিবারের দাবি তাকে পরিকল্পিতভাবে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

রাউজান থানার ওসি কেফায়েত উল্লাহ জয়নিউজকে বলেন, এর আগেও এই দম্পতির দাম্পত্য বিরোধ নিরসনে গোদারপাড় পুলিশ চেকপোস্টে সালিসি বৈঠক হয়। শুক্রবার আরেকটি বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। এরমধ্যেই তারেকের মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়। ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেছে।

জয়নিউজ/এমজেএইচ
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...